ঝালকাঠির নলছিটিতে সাবেক পুলিশ কর্মকর্তার আঁকুতি ঝালকাঠির নলছিটিতে সাবেক পুলিশ কর্মকর্তার আঁকুতি - ajkerparibartan.com
ঝালকাঠির নলছিটিতে সাবেক পুলিশ কর্মকর্তার আঁকুতি

2:32 pm , September 4, 2020

ঝালকঠি প্রতিবেদক ॥ জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলা ও হত্যা চেষ্টার ঘটনায় নলছিটিতে অবসর প্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তার পঙ্গুত্ব জীবন নিয়েও হুমকির মুখে রয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এমনকি ঐ পুলিশ কর্মকর্তাকে এলাকা থেকে তাড়াতে নানা নীল নকশা ও নাটকীয় ঘটনা সৃষ্টি করে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করার পায়তারা চালাচ্ছে। ন্যায় বিচার পেতে ঐ পুলিশ কর্মকর্তা পঙ্গু জীবন নিয়ে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী ও আদালতের দ্বারপ্রান্তে ঘুরছে। অভিযোগে জানা যায়, শাহজাহান হাওলাদার উপজেলার রানাপাশায় ২৫ শতাংশ জমি ২০১৪ সালে সাব কবলা দলিল করেন। উক্ত জমির উপর প্রতিপক্ষ ইউপি সদস্য হেমায়েত উদ্দিনের নজরে পড়ে। এবং জমি জবর দখল নেয়ার চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে গত ১৮ নভেম্বর অবসর প্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্ত শাহজাহান হাওলাদারের উপর হেমায়েতের দলবল নিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায়। এতে শাহজাহান হাওলাদারের একটি কান কেটে যায় এবং একটি পা ভেঙ্গে দ্বিখন্ডিত হয়। এছাড়াও তার শরীরে বিভিন্ন স্থানে গুরুতর জখম করে হত্যার চেষ্টা করে। এ ঘটনায় ঐ সময় নলছিটি থানায় মামলা দায়ের করেন। অপরদিকে প্রতিপক্ষ ইউপি সদস্য হেমায়েত এ সুযোগে শাহাজাহান হাওলাদারের সাবকবলা জমিতে জবর দখল করার চেষ্টা করলে তার বিরুদ্ধে আদালতে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়। কিন্তু ইউপি সদস্য হেমায়েত আদালতের আদেশ অমান্য করে একটি টিনের ঘর তোলে এবং সীমানা পিলার ভেঙ্গে ফেলে। যাহা নলছিটি থানা তদন্ত করে সত্যতা পেয়ে প্রসিকিউশন দাখিল করে। এবং আদালত স্ব স্ব স্থানে থাকার নির্দেশনা দেন। কিন্তু হেমায়েত মেম্বর আদালতে লিখিত দিয়ে জমি জবর দখল না করতে পেরে নয়া কৌশল অবলম্বন করে। তারই ধারাবাহিকতায় কখনও তার ছেলেকে কখনও নিজেকে অপহরন নাটক সাজানোসহ একের পর এক ষড়যন্ত্রের নীল নকশা এঁকে যাচ্ছেন। এমনকি নিজেকে জখমী সাজিয়ে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে। বর্তমানে আবারও ঘায়েল করতে মামলা করার ষড়যন্ত্র চালাচ্ছে। এমন অভিযোগ করেছেন অবসর প্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা শাহাজাহান হাওলাদার। এ বিষয়ে অবসর প্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা শাহাজাহান হাওলাদার তার ও তার পরিবারের নিরাপত্তার দাবী জানিয়ে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা ষড়যন্ত্রমূলক মামলা থেকে মুক্তি ও তার উপর হামলার ন্যায় বিচার দাবী করেছেন। তার বিরুদ্ধে অপহরনের নাটকীয় ষড়যন্ত্রসহ প্রতিপক্ষের হাত থেকে রক্ষা পেতে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সহায়তা চেয়েছেন। এ ব্যাপারে নলছিটির নাচোলমহল ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য হেমায়েত হাওলাদার অভিযোগ অস্বীকার করে জানান, তাকে অপহরণ করা হয়েছিল। হেমায়েত হোসেন আরো দাবি করেন, “বুধবার ঝালকাঠি আদালতে মামলার হাজিরা দিয়ে বাড়ী ফেরার পথে তার প্রতিপক্ষের ভাড়াটে সন্ত্রাসীরা বারইকরন খেয়াঘাট থেকে তাকে অপহরণ করে একটি ট্রলারে উঠিয়ে ইটখোলায় নিয়ে যায়। সেখানে তাকে মারধর করে নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। খবর পেয়ে পুৃলিশ তাকে উদ্ধার করে”। তবে পুলিশ সেখানে গিয়ে অপহরণকারীদের কাউকে পেল না কেন এমন প্রশ্নের কোন সদোত্তর দিতে পারেননি তিনি?

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT