প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন পরিচয়ের প্রতারক গ্রেপ্তার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন পরিচয়ের প্রতারক গ্রেপ্তার - ajkerparibartan.com
প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন পরিচয়ের প্রতারক গ্রেপ্তার

4:38 pm , May 2, 2024

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়সহ সরকারী বিভিন্ন দপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা পরিচয়ে চাকুরি দেয়ার প্রলোভনে অর্থ হাতিয়ে নেয়া এক প্রতারককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার প্রতারককে ঢাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানিয়েছেন বরিশাল মহানগরের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মোহাম্মদ জাকির হোসেন মজুমদার। এ বিষয় নিয়ে বুধবার মহানগর পুলিশ সদর দপ্তরে প্রেস ব্রিফিং করেন তিনি। গ্রেপ্তারকৃত প্রতারক শাকিল আহম্মেদ (৫০) পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জ উপজেলার পূর্ব সুবিদখালী গ্রামের গিয়াসউদ্দিন আহম্মেদের ছেলে। সে নিজেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের পার্সোনাল অফিসার, নির্বাচন কমিশনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, বিভিন্ন মন্ত্রনালয়ের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মূখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে প্রতারনা করেছে উপ-পুলিশ কমিশনার জানিয়েছেন। প্রেস ব্রিফিংয়ে উপ-পুলিশ কমিশনার জানান, বরিশাল শেরই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনে মেডিএইড ডায়াগনষ্টিক ল্যাবের ব্যবস্থাপক মো. তারিকুল ইসলামের করা মামলার আসামী হিসেবে শাকিলকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাকে গ্রেপ্তারের পর ভুক্তভোগীরা তাদের সাথে নানা পরিচয়ে প্রতারনার বিষয়টি জানিয়েছেন। তাদের দেয়া হিসেবে প্রতারক শাকিল বিভিন্ন পরিচয়ে প্রতারনা করে এখন পর্যন্ত অর্ধকোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। তার সাথে আরো কেউ জড়িত রয়েছে কিনা জানার চেষ্টা চলছে। এজন্য তাকে আরো জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। উপ-পুলিশ কমিশনার বলেন, প্রতারক শাকিল আহমেদ প্রায় সময় ডায়াগনষ্টিক ল্যাবে যেত। সেখানে গিয়ে তিনি নিজেকে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের সিইও হিসেবে কর্মরত বলে পরিচয় দেয়। তারিকুলকে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনে লাইসেন্স শাখায় সুপারভাইজার পদে চাকুরী করার প্রলোভন দেয়। প্রলোভনে সাড়া দিয়ে প্রতারক শাকিলকে বিভিন্ন সময়ে নগদ ও বিকাশের মাধ্যমে ৭২ হাজার ৫০০ টাকা দেয়। টাকা নেয়ার পর চাকুরি না দিয়ে টালবাহান শুরু করলে খবর নিয়ে জানতে পারে ওই নামে সিটি কর্পোরেশনে কোন কর্মকর্তা নেই। এ ঘটনায় গত ২৯ এপ্রিল তারিকুল কোতয়ালী মডেল থানায় মামলা করে। মামলার পর ডিবির পরিদর্শক ছগির হোসেনকে তদন্তের দায়িত্ব দেয়া হয়। মামলা হওয়ার ৪৮ ঘন্টার মধ্যে ঢাকার মিরপুর থেকে শাকিলকে গ্রেপ্তার করেছে। জিজ্ঞাসাবাদে শাকিল তার অপরাধের কথা স্বীকার করেছে।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT