১৪ বছর পর স্ত্রী হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত স্বামী গ্রেপ্তার ১৪ বছর পর স্ত্রী হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত স্বামী গ্রেপ্তার - ajkerparibartan.com
১৪ বছর পর স্ত্রী হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত স্বামী গ্রেপ্তার

4:25 pm , March 19, 2024

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ ১৪ বছরের অধিক সময় পালিয়ে থেকেও রক্ষা হলনা স্ত্রী হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত প্রধান আসামী নজরুল ইসলামের। সোমবার রাত সাড়ে ৯ টার দিকে তাকে পিরোজপুর জেলা সদরের কৃষ্ণচূড়া এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করেছে বরিশাল র‌্যাব-৮ সিপিএসসি’র সদস্যরা। গ্রেপ্তার মোঃ নজরুল ইসলাম (৫৩) পিরোজপুর জেলার সদর থানাধীন চলিশা এলাকার মৃত জাবেদ আলী খানের ছেলে। সোমবার (১৮ মার্চ) রাত সাড়ে ১১ টার দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে র‌্যাব-৮ এর মিডিয়া সেল। সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে র‌্যাব জানায়, গত ২০০৯ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর পিরোজপুর সদর থানাধীন ধূলিয়ারী কদমতলা গ্রামের ঝরঝরিয়া তলা নামক স্থানের একটি ডোবা থেকে হাত বাধাঁ অবস্থায় অজ্ঞাতনামা নারীর মরদেহ উদ্ধার করে থানা পুলিশ। যে ঘটনায় থানা পুলিশ বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এদিকে উদ্ধার হওয়া মরদেহটি গ্রেপ্তার সাজাপ্রাপ্ত নজরুল ইসলামের স্ত্রী নাসিমা (২০) এর বলে শনাক্ত করা হয়। আর নাসিমার মৃত্যুর ঘটনার সাথে স্বামী নজরুলের সম্পৃক্ততা প্রমাণিত হওয়ায় আদালত তাকে ৩০২ ধারায় যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও বিশ হাজার টাকা অর্থদন্ড অনাদায়ে ০৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করে। পাশাপাশি ২০১ ধারায় ০৭ বছরের সশ্রম কারাদন্ড ও পাঁচ হাজার টাকা অর্থ দন্ডে দন্ডিত করেন। তবে নজরুল ইসলাম পলাতক থাকায় তার বিরুদ্ধে আদালত ওইসময় গ্রেপ্তারী পরোয়ানা জারি করে। র‌্যাব জানায়, র‌্যাব—৮, সিপিএসসি, বরিশাল ছায়াতদন্ত করে এবং আধুনিক তথ্য ও প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে যাবজ্জীবন সাজা প্রাপ্ত আসামীর অবস্থান সনাক্ত করে অভিযান পরিচালনা করে তাকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। পরবর্তীতে উল্লেখিত যাবজ্জীবন সাজা প্রাপ্ত আসামীকে পিরোজপুর সদর থানা পুলিশের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে র‌্যাব জানায়।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT