সাদিকের প্রার্থীতা স্থগিত, শাম্মীর বাতিল বহাল সাদিকের প্রার্থীতা স্থগিত, শাম্মীর বাতিল বহাল - ajkerparibartan.com
সাদিকের প্রার্থীতা স্থগিত, শাম্মীর বাতিল বহাল

3:47 pm , December 19, 2023

সাইদ মেমন ॥ প্রতীক বরাদ্দ নেওয়ার পর পরই বরিশাল-৫ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর প্রার্থীতা স্থগিত রেখেছেন হাইকোর্টের চেম্বার বিচারপতি। এর আগে মঙ্গলবার বেলা ১২ টার দিকে রিটানিং কর্মকর্তা বরিশাল জেলা প্রশাসক শহীদুল ইসলামের কাছ থেকে প্রতীক বরাদ্দ নেয় সাদিক অনুসারীরা। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে তিনি ঈগল প্রতীক পেয়েছিলেন। প্রতীক নিতে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে যান বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক ও সাবেক সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর পক্ষে তার অনুসারীরা। এদের মধ্যে ছিলেন বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ্যাড. একেএম জাহাঙ্গীর, বরিশাল-৫ আসন থেকে মনোনয়ন চেয়ে না পাওয়া মাহবুবউদ্দিন আহমেদ বীর বিক্রম ও সদর উপজেলার চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান রিন্টু, নগরীর ৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর এ্যাড. রফিকুল ইসলাম খোকন প্রমুখ। প্রতীক বরাদ্দ নিয়ে বরিশাল জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের গেটে এসে খবর পান আপীল বিভাগের চেম্বার বিচারপতি প্রার্থীতা স্থগিত রেখেছেন। এ বিষয়ে বরিশাল-৫ আসনের আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী কর্নেল (অব.) জাহিদ ফারুক শামীম অনুসারী এ্যাড. লস্কর নুরুল হক জানান, তার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করে হাইকোর্ট যে রায় দিয়েছিল আপিল বিভাগের চেম্বার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম মঙ্গলবার তা স্থগিত করে দিয়েছেন। বরিশালের সাবেক মেয়র সাদিক আবদুল্লাহ দলের মনোনয়ন না পেয়ে বরিশাল-৫ আসনে স্বতন্ত্র হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। গত ১৫ ডিসেম্বর রিটার্নিং কর্মকর্তা তার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করেছিলেন। কিন্তু দ্বৈত নাগরিকত্বের অভিযোগ তুলে তার মনোনয়ন বাতিল চেয়ে পরে ইসিতে আপিল করেন এ আসনের নৌকার প্রার্থী পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম। শুনানি শেষে সাদিক আবদুল্লাহর প্রার্থিতা বাতিল করে কমিশন।
নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে এরপর হাইকোর্টে রীট আবেদন করেন সাদিক।
ওই  আবেদনের শুনানি করে সোমবার হাইকোর্টের বিচারপতি আবু তাহের সাইফুর রহমান ও বিচারপতি মো. বশির উল্লাহর বেঞ্চ বরিশাল-৫ আসনের এই স্বতন্ত্র প্রার্থীর প্রার্থিতা বৈধ ঘোষণা করেন।
হাইকোর্টের ওই আদেশ স্থগিত চেয়ে এরপর আপিল বিভাগের চেম্বার আদালতে আবেদন করেন নৌকার প্রার্থী জাহিদ ফারুক শামীম। সেই আবেদনের প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের রায় স্থগিত হয়ে গেল।
এদিকে, চেম্বার বিচারপতির আদেশ ব্যাকেট করার জন্য লিভ টু আপীল করার কথা জানিয়ে এ্যাড. গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল বলেন, এখন পর্যন্ত সিদ্ধান্ত আগামী ২১ ডিসেম্বর লিভ টু আপীল করা হবে। দেখি বিচারপতি কি আদেশ দেন। আমরা শেষ পর্যন্ত ফাইট করবো।
অপরদিকে হাই কোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে আপিল বিভাগে গিয়েও প্রার্থিতা ফিরে পাননি  বরিশাল-৪ আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শাম্মী আহমেদ।
দ্বৈত নাগরিকত্বের অভিযোগে শাম্মীর প্রার্থিতা বাতিলের সিদ্ধান্ত বহাল রেখেছিল হাইকোর্ট। সেই আদেশের বিরুদ্ধে শাম্মীর করা আপিল আবেদন গ্রহণ করেনি আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত। আপিল বিভাগের চেম্বার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম মঙ্গলবার এই আদেশ দেন। এর ফলে তার মনোনয়নপত্র বাতিল করে রিটার্নিং কর্মকর্তা যে আদেশ দিয়েছিলেন তা-ই বহাল থাকল।
আপিল বিভাগে এখন অবকাশ চলছে। সাদিক আবদুল্লাহর ভাগ্যে এখন কী ঘটবে জানতে চাইলে অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন বলেন, “চেম্বার আদালত মানে আপিল বিভাগ। এখানে যেটা বাতিল করেছে সে বাতিলই হবে। আর করার কিছু নাই।”
অন্যদিকে সাদিক আবদুল্লাহর আইনজীবী খুরশীদ আলম খান বলেন, “চেম্বার কোর্ট বাতিল করেছে, এখন আমরা নিয়মিত লিভ টু আপিল করব।”

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT