হেফাজতের কমিটি শাক দিয়ে মাছ ঢাকার চেষ্টা -জাহাঙ্গীর কবির নানক হেফাজতের কমিটি শাক দিয়ে মাছ ঢাকার চেষ্টা -জাহাঙ্গীর কবির নানক - ajkerparibartan.com
হেফাজতের কমিটি শাক দিয়ে মাছ ঢাকার চেষ্টা -জাহাঙ্গীর কবির নানক

3:29 pm , April 26, 2021

 

পরিবর্তন ডেস্ক ॥ সদ্য ঘোষণাকৃত হেফাজত ইসলামের আহ্বায়ক কমিটিকে দশাক দিয়ে মাছ ঢাকা চেষ্টা করা হচ্ছেদ বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য এডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক। তিনি বলেন, একেক করে যখন তাদের উইকেট পতন হয়েছিল তখনই তারা কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করে। এসব করে পার পাওয়া যাবে না। হেফাজতের যারা মাদ্রাসা ও মসজিদকে কলঙ্কিত করেছে, পবিত্রতা রক্ষায় তাদের আর মাদ্রাসায় ঢুকতে দেয়া যাবে না। তাদেরকে আমরা সাফ জানিয়ে দিতে চাই, কোন দুষ্কৃতিকারীকে আর সুযোগ দেয়া যাবে না। সোমবার (২৬ এপ্রিল) দুপুরে বগুড়ার শেরপুর উপজেলার বালেন্দাতে দশস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু’ চিত্রকর্মের দশস্য কর্তনদ উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। দেশের লকডাউন নিয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের দেওয়া বক্তব্যের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের এ সভাপতিম-লীর সদস্য বলেন, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেব আপনি সব হারিয়ে পাগলের প্রলাপ বকছেন। এই পাগলের প্রলাপ বাংলাদেশের মানুষ আর গ্রহণ করে না। দেশের জনগণ বিএনপিকে বার বার প্রত্যাখ্যান করেছে। আর এর জন্যই বিএনপি নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়ে, ধ্বংস চালিয়েছে। বিএনপি জামায়াত আর হেফাজত একেক সময় একেক রুপ নেয়। আর এটা বাবুনগরী-মামুনুল হকের নতুন লেবাসই প্রকাশ পেয়েছে। এ সময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম বলেন, এদেশের ধর্ম ব্যবসায়ী, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী শক্তিকে আদর্শিক চিন্তা চেতনার মধ্যে দিয়ে মোকাবেলা করবো। এই সব ধর্ম ব্যবসায়ীদের, অশুভশক্তি, যারা মুক্তিযুদ্ধে বিরোধীতা করেছিল, ১৯৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিল তারাই আজকে দেশকে সাম্প্রদায়িকতার মূলে, দেশের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্থ করছে, তরুণ সমাজকে বিপদ গ্রস্থ করছে। ধর্মকে কাজে লাগিয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে বাধাগ্রস্থ করছে। তিনি বলেন, “তারা কখনও বিএনপি, কখনও জামায়াত, কখনও শিবির আবার এখন হেফাজতে ইসলামের নামে ফয়দা লোটার চেষ্টা করছে। ধর্মকে ব্যবহার করে এই হেফাজতিরা বিরাজনীতিকরণের মাধ্যমে রাজনৈতিক ফয়দা লোটার চেষ্টা করছে।” হেফাজতকে প্রতিহত করার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগের এই যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন,”এই ধর্ম ব্যবসায়ীরা করোনা ভাইরাসের চেয়ে ভয়ঙ্কর। আসুন আমরা এক্যবদ্ধভাবে তাদের প্রতিহত করি।” আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন বলেন, “আজকে হেফাজতে ইসলামের নামে যারা বিরোধীতা করছেন, তারা মূলত জামাত-বিএনপির হেফাজতকারী। তারা ইসলামের হেফাজতকারী নয়, তারা ধর্মব্যবসায়ী। আমাদের লড়াই হচ্ছে এই শক্তির বিরুদ্ধে। “মুক্তিযুদ্ধে, ১৯৭৫ সালের হত্যাকান্ড ও ২০০৪ সালে গ্রেনেড হামলার পৃষ্টপোষকদের অনুসারীই আজকের বাবুনগরী- মামুনুল হক। এই হেফাজতিরা তারেক রহমানের এজেন্ডা বাস্তবায়ন নিয়ে ব্যস্ত। আসুন এি সকল অপশক্তির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াই।” দশস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু’ জাতীয় পরিষদের আহ্বায়ক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিমের সভাপতিত্বে সদস্য সচিব মোস্তাফিজুর রহমান শ্যামল, কৃষক লীগের সভাপতি সমীর চন্দ্র চন্দ, সেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ, সহ- সভাপতি ম. আব্দুর রাজ্জাক, সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু, গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক কেএম মনোয়ারুল ইসলাম বিপুল, বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবুর রহমান মজনু, সাধারণ সম্পাদক রাগিবুল হাসান রিপুসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

এই বিভাগের আরও খবর

বসুন্ধরা বিটুমিন

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT