বরিশালসহ দক্ষিনাঞ্চলের সব নদী বন্দরে শুনশান নিরবতা বরিশালসহ দক্ষিনাঞ্চলের সব নদী বন্দরে শুনশান নিরবতা - ajkerparibartan.com
বরিশালসহ দক্ষিনাঞ্চলের সব নদী বন্দরে শুনশান নিরবতা

3:06 pm , April 8, 2021

করোনায় বিধ্বস্ত দেশের নৌ পরিবহন সেক্টর

বিশেষ প্রতিবেদক ॥ করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পরায় দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম বরিশাল নদী বন্দর সহ সমগ্র দক্ষিনাঞ্চলের নদী বন্দরে এখন শুনশান নিরবতা। পাঁচদিন আগের কোলাহল মুখর বরিশাল নদী বন্দরে গত সোমবার থেকে কোন নৌ-যানের হুইসেল শোনা যায়নি। নেই যাত্রী ও শ্রমিকদের হাকডাক। করোনা মহামারির লকডাউনে দক্ষিণাঞ্চলের ৩টি নদী বন্দর ও শতাধীক লঞ্চঘাটের পরিচালন ব্যবস্থা সম্পূর্ণ বন্ধ। অথচ সাধারন সময়ে এসব নদী বন্দর ও লঞ্চঘাটগুলো থেকে প্রতিদিন গড়ে দু শতাধিক নৌযানে অন্তত ৪০ হাজার যাত্রী পরিবহন হত। গত রোববার রাতে ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা শেষ ট্রিপে লক্ষাধীক যাত্রী দক্ষিণাঞ্চলে পৌছে দিয়ে দেড়শতাধীক নৌযান বরিশাল, ভোলা ও পটুয়াখালী নদী বন্দর সহ বিভিন্ন স্টেশনে নোঙরে রয়েছে। এছাড়াও এসব নৌ বন্দরের আওতাধীন স্থানীয় রুটের আরো শতাধীক ৬৫ ফুট থেকে দেড়শ ফুট দৈর্ঘের নৌযানও বিভিন্ন বন্দর ও স্টেশনগুলোতে অলস বসে আছে। এসব নৌযানের অন্তত ৫ হাজার কর্মচরী এখন অখন্ড অবসরে থাকলেও মাসের শেষে বেতন মিলবে কিনা তা নিয়ে সংশয় সৃষ্টি হয়েছে অনেকের মধ্যেই। তবে ভাল কিছু নৌযান কোম্পানী গত বছর লকডাউনের সময়ও তাদের কর্মীদের বেতন প্রদান করলেও বছরের মাথায় দ্বিতীয় বিপর্যয় মোকাবেলায় কতটুকু সক্ষম হবে তা বলতে পারছেন না। কারণ গতবছর রমজান ও ঈদ উল ফিতর সহ প্রায় আড়াই মাস নৌযান চলাচল বন্ধ থাকায় নৌ পরিবহন খাতে স্মরনকালের ভয়াবহ বিপর্যয় নেমে আসে। সে বিপর্যয় কাটিয়ে ওঠার অগেই আরেকটি লকডাউন পরিস্থিতিকে আরো বড় ধরনের বির্পযয়ের দিকে ঠেলে দিল। এ ব্যাপারে দেশের অন্যতম বৃহৎ নৌ পরিবহন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান সুন্দরবন নেভিশেনের চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান রিন্টু জানান, নৌপথে যাত্রী পরিবহন খাতে নতুন যে বিপর্যয় নেমে এসেছে তা সামাল দেয়া বেশীরভাগ নৌযান ব্যবসায়ীর পক্ষেই সম্ভব হবে না। সরকার এখাতে কোন প্রনোদনাও দেয়নি গতবছর। অথচ নৌযান কর্মীদের বেতন দিতে হয়েছে। এবারো দিতে হবে। এরসাথে সরকারের বিভিন্ন ধরনের কর ও ভ্যাট ছাড়াও ব্যাংকের সুদ সহ কিস্তি পরিষোধ করতে হচ্ছে। কিন্তু আয় নেই। ফলে টাকা কোথা থেকে আসবে সে উত্তর খুজছেন নৌযান মালিকরা। একই উদ্বেগের কথা জানিয়েছেন সালমা শিপিং লাইন্স-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মঞ্জুরুল আহসান ফেরদৌস’ও। পাশাপাশি বেশীরভাগ নৌযান শ্রমিক-কর্মচারীও বেতনÑভাতা নিয়ে তাদের উদ্বেগ আর অনিশ্চতার কথাও জানিয়েছেন।

এই বিভাগের আরও খবর

বসুন্ধরা বিটুমিন

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT