মিনু ক্ষমা না চাইলে আওয়ামী লীগের অনেক কিছু করার আছে : নানকের হুঁশিয়ারী মিনু ক্ষমা না চাইলে আওয়ামী লীগের অনেক কিছু করার আছে : নানকের হুঁশিয়ারী - ajkerparibartan.com
মিনু ক্ষমা না চাইলে আওয়ামী লীগের অনেক কিছু করার আছে : নানকের হুঁশিয়ারী

3:05 pm , March 7, 2021

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ রাজশাহী বিভাগীয় সমাবেশে দেওয়া বক্তব্যে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনুকে জাতির সামনে ক্ষমা চাওয়ার জন্য বলেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী এ্যাড. জাহাঙ্গীর কবির নানক। তিনি হুশিয়ারী দিয়ে বলেন, ‘মিনুর বক্তব্য যদি বিএনপি দলীয় বক্তব্য হয় তাহলে আওয়ামী লীগের অনেক কিছু বলার আছে, অনেক কিছু করার আছে। সরকারকে অনুরোধ করব তাকে আইনের আওতায় এনে এ বক্তব্যের উৎস কি তা খতিয়ে দেখা হোক।’ গতকাল রবিবার দুপুরে ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে কৃষক লীগ আয়োজিত ‘কৃষক সমাবেশ ও আলোচনা সভায়’ নানক এসব কথা বলেন।
‘আজ রাত, কাল আর সকাল নাও হতে পারে। ৭৫ মনে নাই?’ রাজশাহী বিভাগীয় সমাবেশে মিনুর এ বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর এ সদস্য বলেন, মুজিব প্রেমি জনগণ শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বন্দী গণতন্ত্রকে যেভাবে মুক্তি করেছে, তেমনি ভাবে ষড়যন্ত্রের আস্তানায় আঘাত হেনে ওদেরকে বঙ্গোপসাগরে নিক্ষেপ করা হবে।
বিএনপির দিকে ইঙ্গিত করে আওয়ামী লীগের নেতা নানক বলেন, ৭৫ সালের ১৫ আগস্ট এর পরে সেই ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণকে নিষিদ্ধ করা হলো। শুধু নিষিদ্ধই নয়, আমরা যারা মুজিব প্রেমিক ৭ ই মার্চের ভাষণ বাঁচানোর চেষ্টা করেছি। আমাদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। শুধু গ্রেপ্তার করেই ক্ষান্ত হয়নি, তারা বাজার থেকে ৭ মার্চ ভাষণের সকল কিছু মুছে দিতে চেয়েছিল। আজ তারাই ৭ মার্চের ভাষণ পালন করছে। তাদের এসবই দেশ-বিদেশের ষড়যন্ত্রের অংশ।
শান্তিপ্রিয় বাঙালি কোন ধরনের ষড়যন্ত্র সফল হতে দিবে না বলেও উল্লেখ করেন নানক। আওয়ামী লীগের সকল নেতাকর্মীদের আহবান করে তিনি বলেন, দেশ-বিদেশের ষড়যন্ত্র এবং চক্রান্তকারীরা বসে নেই। যখনই বাংলাদেশ সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নশীল দেশে উপনীত হয়েছে তখন অনেকেরই গাত্রদাহ শুরু হয়ে গেছে। যখন বাংলাদেশের মানুষ তাদের মৌলিক অধিকার বুঝে পেয়েছে, তখন সেই বাংলাদেশকে আবার পেছনের দিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য ওরা আবার ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। ওদের ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করার জন্য আমাদের যখনই ডাক দেয়া হবে তখনই যেন লক্ষ লক্ষ নেতাকর্মী রাস্তায় নেমে আসে, সে প্রস্তুতি আমাদের থাকতে হবে।
অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম বলেন, বাংলার মানুষ সরকার পতনের তর্জন-গর্জন জনগণ আর বিশ্বাস করে না। জনগণ বিএনপির ওপর থেকে আস্থা হারিয়েছে। জনগণ দেশের স্থিতিশীল, শান্তি-শৃঙ্খলায় বিশ্বাসী। বিএনপির আন্দোলনের নামে অশুভ তৎপরতার বিরুদ্ধে সোচ্চার জনগণ। তবুও দেশ-বিদেশের যে ধরনের ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে তার জন্য আমাদের সকলকে প্রস্তুত থাকতে হবে।
আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবুসহ কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় নেতারা। সভার সভাপতিত্ব করেন কৃষক লীগের সভাপতি সমীর চন্দ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক উম্মে কুলসুম স্মৃতি।

এই বিভাগের আরও খবর

বসুন্ধরা বিটুমিন

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT