কাশিপুরে বিএম কলেজ ছাত্রীর লাশ উদ্ধার ॥ প্রেমিককে গ্রেপ্তারের চেষ্টায় পুলিশ কাশিপুরে বিএম কলেজ ছাত্রীর লাশ উদ্ধার ॥ প্রেমিককে গ্রেপ্তারের চেষ্টায় পুলিশ - ajkerparibartan.com
কাশিপুরে বিএম কলেজ ছাত্রীর লাশ উদ্ধার ॥ প্রেমিককে গ্রেপ্তারের চেষ্টায় পুলিশ

3:07 pm , May 4, 2019

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ নগরীর কাশিপুর ফিসারী রোডের ভাড়া বাসা থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করা বিএম কলেজ ছাত্রীর ময়না তদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল শনিবার শেবাচিম হাসাপাতালে তার মৃতদেহের ময়না তদন্তের পর লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। শুক্রবার কলেজ ছাত্রী মিলি ইসলামের (২৫) ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। সে বিএম কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্সের শেষ বর্ষের ছাত্রী ছিল। মিলি উজিরপুর উপজেলার জুগীকাঠি এলাকার মৃত আবুল কালাম আকনের কন্যা। ফিসারী রোডের ডা. আলী আজিমের ভবনের চার তলার ভাড়া বাসায় গত বৃহস্পতিবার ভাড়াটে হিসেবে উঠেছিল মিলি।
এয়ারপোর্ট থানার ওসি এসএম মাহবুব উল আলম জানান, মিলি নিজেকে বিবাহিত পরিচয় দিয়ে বৃহস্পতিবার বিকেলে ডা. আলী আজিমের ভবনের চার তলার ফ্ল্যাট ভাড়া নেয়। বৃহস্পতিবার বিকেলে ওই ফ্ল্যাটে ওঠেন। ভাড়া নেয়ার সময় ভবন মালিককে জানান, এক স্কুল শিক্ষকের সাথে সম্প্রতি তার বিয়ে হয়েছে। সকালে ওই ফ্ল্যাটে সাড়া শব্দ না পেয়ে ভবন মালিক আলী আজিম পুলিশে খবর দেয়। বেলা সাড়ে ১১টার দিকে পুলিশ গিয়ে দরজা খুলে ফ্যানের সঙ্গে ওড়না দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় তার লাশ দেখতে পায়। পরে পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
ওসি এস এম মাহবুব উল আলম জানান, মিলির স্বজনদের সাথে কথা বলে জানা গেছে তার গৃহশিক্ষক ছিল পুলিন। এক পর্যায়ে তাদের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তবে পুলিন হিন্দু ধর্মাবলম্বী হওয়ায় মিলির পরিবার বিষয়টি মেনে নেয়নি। এ নিয়ে মিলির সঙ্গে তার পরিবারের সদস্যদের বিরোধ দেখা দেয়। একপর্যায়ে মিলি তার পরিবারের সাথে সম্পর্ক ত্যাগ বাড়ি থেকে চলে এসেছে। এরপর পুলিন তাকে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানায়। এতে মিলি আত্মহত্যার পথ বেছে নেয় বলে ধারণা করা হচ্ছে। ওসি এস এম মাহবুব উল আলম আরও জানান, পুলিনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার সন্ধান করা হচ্ছে। বর্তমানে তার অবস্থান সনাক্ত করা হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে আত্মহত্যার প্রকৃত কারন জানা যাবে।
এদিকে ওসি আরো জানান, মিলির লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তরের পর শনিবার তার দাফন সম্পন্ন হয়েছে। তবে গতকাল শনিবার বিকেল পর্যন্ত কোন লিখিত অভিযোগ দেয়নি পরিবার। আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে মামলা করা হবে বলে এমন আশ্বাস পরিবার থেকে পেয়েছি। মামলা হলে পরবর্তি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০  




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT