সরকারী কাজে ঘুষ বন্ধে মঠবাড়িয়ায় এমপি’র স্টিকার সরকারী কাজে ঘুষ বন্ধে মঠবাড়িয়ায় এমপি’র স্টিকার - ajkerparibartan.com
সরকারী কাজে ঘুষ বন্ধে মঠবাড়িয়ায় এমপি’র স্টিকার

3:28 pm , January 19, 2019

মঠবাড়িয়া প্রতিবেদক ॥ পিরোজপুর-৩ মঠবাড়িয়া আসনের ৪র্থ বারের মত নির্বাচিত সংসদ সদস্য ডাঃ রস্তুম আলী ফরাজী ঘুষ দুূর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছেন। সংসদ সদস্য তার নির্বাচনী এলাকার বিভিন্ন দপ্তর, শহরের অলিগলিসহ পথে ঘাটে ‘সরকারী যে কোন কাজের জন্য ঘুষ দেয়া-নেয়া চলবে না’ এমন লেখা সংবলিত ষ্টিকার সাটিয়ে দিয়েছেন। এক পাশে সাংসদ ডাঃ রস্তুম আলী ফরাজীর ছবি ও নীচে তার মোবাইল নম্বর ও পরিচয়। ফরাজীর এই ঘোষণাকে স্বাগত জানিয়েছেন মঠবাড়িয়ার সর্বস্তরের মানুষ। মঠবাড়িয়া পৌর শহরের বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নূর হোসাইন মোল্লা জানান, মঠবাড়িয়ায় ঘুষ দূর্নীতি বেশী। সেটেলমেন্টঅফিসে টাকা দিয়ে একের জন্য অন্যের নামে নিয়ে যায়। সাংসদ ফরাজী ঘুষ, দুর্নীতির বিরুদ্ধে যে উদ্যোগ নিয়েছেন তাকে আমরা স্বাগত জানাই।
সাংসদ ডাঃ রস্তুম আলী ফরাজীর ব্যাক্তিগত সহকারী আলী রেজা রঞ্জু জানান, নির্বাচনের পরে চার বারের এমপি ডাঃ রস্তুম আলী ফরাজীকে উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পক্ষ থেকে সংবর্ধনার জবাবে তিনি বলেছেন, মাদক, সন্ত্রাস ও দূর্নীতির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জিরো টলারেন্স, আমার পক্ষ থেকেও জিরো টলারেন্স দেখানো হবে। যারা দূর্নীতি করতে চান তারা আগে ভাগেই বদলী হয়ে চলে যান। আমার যেন বদলী করা না লাগে। আলী রেজা রঞ্জু আরও জানান, ষ্টিকারে সাংসদ ডাঃ রস্তুম আলী ফরাজী তার মোবাইল ফোন নম্বর দিয়েছেন। প্রয়োজন হলে তার সাথে কথা বলতে পারবেন লোকজন। এব্যপারে সাংসদ ডাঃ রুস্তম আলী ফরাজী জানান, জনগনের ভালোবাসা নিয়ে আমি বার বার নির্বাচিত হয়েছি। নিজে এক টাকা ঘুষ খাইনা। ঘুষের সাপোর্ট করি না। আমার এলাকায় সরকারী কাজে কেউ ঘুষ দেবে না। কারো বিরুদ্ধে যদি এক টাকারও ঘুষের প্রমান পাই তবে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোন ধরনের দূর্নীতির খবর জনগন যাতে সরাসরি আমাকে জানাতে পারে সেজন্য সরকারি দপ্তরে আমার নাম্বারসহ স্টিকার লাগিয়ে দেয়া হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT