আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রকসহ ২১ জনের বিরুদ্ধে মামলা আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রকসহ ২১ জনের বিরুদ্ধে মামলা - ajkerparibartan.com
আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রকসহ ২১ জনের বিরুদ্ধে মামলা

6:43 pm , April 30, 2018

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বরিশাল সদর এলএসডি’র শ্রম ও হ্যান্ডলিং’র কাজে অবৈধভাবে ঠিকাদার নিয়োগের অভিযোগে আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রকসহ ২১ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। গতকাল সোমবার বাবুগঞ্জের রাজগুরু গ্রামের বাসিন্দা মেসার্স খান ট্রেডার্সের প্রোপাইটর মোঃ সেন্টু খান বাদী হয়ে সদর সিনিয়র সহকারি জজ আদালতে এ মামলাটি দায়ের করেন। আদালতের বিচারক মো. হাদিউজ্জামান মামলাটি শুনানীর জন্য অপেক্ষমান রাখেন। মামলার অন্যান্য বিবাদীরা হলো বরিশাল জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, বরিশাল কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক, বরিশাল সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী, বরিশাল জেলা পুলিশ সুপার, জেলা প্রশাসক, বিভাগীয় কমিশনার, খাদ্য অধিদপ্তরের মহা-পরিচালক, হিসাব ও অর্থ বিভাগের পরিচালক, খাদ্য ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রনালয়ের প্রধান হিসাব রক্ষন কর্মকর্তা, খুলনা চলাচল ও সংরক্ষন নিয়ন্ত্রক (খাদ্য), বরিশাল বিভাগীয় হিসাব রক্ষন কর্মকর্তা, খাদ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহ-পরিচালক, খাদ্য ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রনালয়ের উপ-সচিব (বাজেট), উপ-সচিব (সরবরাহ-২ অধিশাখা), চলাচল, সংরক্ষন ও সাইলো বিভাগের পরিচালক, নগরীর দক্ষিন সাগরদীর সামসুল হক, কাউনিয়ার বাসিন্দা মেসার্স রুম্পা এন্টার প্রাইজের প্রোপাইটর ফারজানা বেগম ও চট্টগ্রামের মেসার্স বি.এস.ট্রেডিং’র প্রোপাইটর পংকজ কান্তি দাস। মামলার সুত্রে জানা গেছে, সেন্টু খান দির্ঘদিন ধরে সুনামের সাথে বরিশাল সদর এল.এস.ডি’র শ্রম ও হস্তচালিতের কাজ করে আসছিলো। এ সেক্টরে ঠিকাদার নিয়োগের ব্যপারে প্রতিবারই বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে ঠিকাদার নিয়োগ দেয়া হতো। কিন্তু সম্প্রতি কোন রকম বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ ছাড়াই মৌখিক ভাবে ঠিকাদার নিয়োগের কথা প্রকাশ করে কতৃপক্ষ। এতে গোপনে জানতে পেরে অন্যন্য ঠিকাদারদের পাশাপাশি সেন্টু খান তার নিজ মালিকানাধীন মেসার্স খান ট্রেডার্সও সিডিউল ড্রপ করে। তবে কবে ওই সিডিউল খোলা হবে তা জানানো হয়কি কাউকেই। এতে ঠিকাদার সামসুল হক, ফারজানা বেগম ও পংকজ কান্তি দাসের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা ঘুষ নিয়ে গোপনে তাদের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে নিয়োগ দেয়া হয়। অপরদিকে বাদির সকল কাগজপত্র সঠিক থাকার পরেও তার সিডিউল অসম্পুর্ন দেখিয়ে কৌশলে বাদ দেয়া হয়। তাই বাদির সিডিউলকে সঠিক বলে বিবেচিত করার দাবি জানিয়ে এ মামলা করা হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT