আপগ্রেডিং পাঙ্গাস এন্ড তেলাপিয়া ভেলূ চেইন ইন বাংলাদেশ শীর্ষক কনফারেন্স অনুষ্ঠিত আপগ্রেডিং পাঙ্গাস এন্ড তেলাপিয়া ভেলূ চেইন ইন বাংলাদেশ শীর্ষক কনফারেন্স অনুষ্ঠিত - ajkerparibartan.com
আপগ্রেডিং পাঙ্গাস এন্ড তেলাপিয়া ভেলূ চেইন ইন বাংলাদেশ শীর্ষক কনফারেন্স অনুষ্ঠিত

3:20 pm , December 12, 2018

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ ডেনিস ইন্টারন্যাশন্যাল ডেভলপমেন্ট এজেন্সির (ডানিডা) অর্থায়নে “আপগ্রেডিং পাঙ্গাস এন্ড তেলাপিয়া ভ্যালূ চেইন ইন বাংলাদেশ” বিষয়ক দিনব্যাপী কনফারেন্স অনুষ্ঠিত হয়। গত সোমবার বাকৃবির কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীন সমাজবিজ্ঞান অনুষদের কনফারেন্স সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত কনফারেন্সে ব্যাংফিস প্রকল্পের কান্ট্রি কো-অর্ডিনেটর ও ওয়ার্ক প্যাকেজ-২ এর টিম লিডার পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন ও ব্যবস্থাপনা অনুষদের ডিন ও অর্থনীতি ও সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর বদিউজ্জামান সভাপতিত্ত্ব করেন। সভাপতির বক্তব্যে তিনি পাঙ্গাস ও তেলাপিয়া উৎপাদন ও বাজার সম্প্রাসারনের কিছু বিষয় উল্লেখ করেন। মাছ ও মাছ জাতীয় পণ্যের বৈচিত্রকরণ, নতুন নতুন বাজর তৈরি, বৈদেশিক বাজার দখল ও দেশীয় উচ্চবিত্তদের মধ্যে পাঙ্গাস ও তেলাপিয়া কে গ্রহণযোগ্য করার জন্য বিভিন্ন বাধা দুর করার বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহনের সুপারিশ করেন। এদের মধ্যে পাঙ্গাস ও তেলাপিয়ার অফ-ফ্লেভার (দুর্গন্ধ) দুর করা ও মাছের হলুদাভ রং আকর্ষনীয় সাদা করার বিষয় উল্লেখযোগ্য। কনফারেন্সে এ দুটি বিষয়ে সমাধানের উপরে ওয়ার্ক প্যাকেজ-১ এর আওতায় দুটি গবেষণা প্রবন্ধ উপস্থাপন করা হয়। কৃষি অর্থসংস্থান বিভাগের অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান খান কনফারেন্সে ৫ বছর মেয়াদী ডানিডার আর্থিক সহায়তায় পরিচালিত মাল্টি ডিসিপ্লিনারি প্রকল্পের ২০১৫ থেকে অদ্যাবধি অর্জিত সাফল্য ও অগ্রগতির উপর একটি প্রেজেন্টশন উপস্থাপন করেন। কনফারেন্সে অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান খান বলেন পাঙ্গাস ও তেলাপিয়া চাষে কম শ্রমিক ও কম খরচ প্রয়োজন হয়। অল্প পুঁজি ও অল্প সময়ে বাজারপোযোগি করা সম্ভব। বর্তমানে আমাদের দেশে চার লক্ষ টন পাঙ্গাস ও তিন লক্ষ টন তেলাপিয়া উৎপাদন হচ্ছে। প্রজাতি দুটির সঠিক পরিচার্যার মাধ্যমে সুস্বাদু ও পুষ্টিমান ঠিক রেখে তা আমরা বিদেশে রপ্তানি করার পাশাপাশি দেশেই চাহিদা সৃষ্টি করাতে পারি। এ প্রকল্পের অর্থায়নে পবিপ্রবি/বাকৃবি এবং কেপেনহেগেন ইউনিভার্সিটি, ডেনমার্কের ডাবল ডিগ্রী প্রোগামের অধীনে ৬ জন ছাত্র পিএইচডি কোর্সে অধ্যায়নরত। এদের মধ্যে ৫ জন পবিপ্রবিতে ও একজন বাকৃবিতে ভর্তিকৃত। উক্ত কনফারেন্সের টেকনিক্যাল সেশনে পবিপ্রবির ইকোনোমিক্স এন্ড সোসিওলজি বিভাগে ভর্তিকৃত ৩ জন পিএইচডি ছাত্র ও অত্র বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মোঃ তকিবুর রহমান, সহযোগী অধ্যাপক, একাউন্টিং এন্ড ইনফরমেশন সিস্টেম বিভাগ, ইমারানুল ইসলাম, সহযোগী অধ্যাপক, মার্কেটিং বিভাগ, আফজাল হোসেন, সহযোগী অধ্যাপক, মার্কেটিং বিভাগ এবং বাকৃবিতে ভর্তিকৃত মি. সন্দিপ মিত্র তাদের নিজ নিজ পিএইচডি বিষয়ের উপর একটি করে গবেষণা প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন। টেকনিক্যাল সেশন পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন প্রফেসর ড. মোঃ ফেরদৌস আলম। উক্ত কনফারেন্সে প্রধান অতিথি হিসেবে বাকৃবির উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. মোঃ জসিম উদ্দিন খান ও সম্মানিত বিশেষ অতিথি হিসেবে বাকৃবির কৃষি অর্থনীতি বিভাগের এমিরিটাস অধ্যাপক ও বাকৃবির প্রাক্তন উপাচার্য ড. এম.এ. সাত্তার মন্ডল উপস্থিত ছিলেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীন সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সবুর ও ডেনমার্কের কোপেনহেগের বিশ্ববিদ্যালয়ের ইকোলজি এন্ড এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. নেইলস ও. জি. জরজেনসেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT