সাদিক আবদুল্লাহ’তে ঐক্যবদ্ধ আ’লীগ ও অঙ্গ সংগঠন সাদিক আবদুল্লাহ’তে ঐক্যবদ্ধ আ’লীগ ও অঙ্গ সংগঠন - ajkerparibartan.com
সাদিক আবদুল্লাহ’তে ঐক্যবদ্ধ আ’লীগ ও অঙ্গ সংগঠন

6:08 pm , June 25, 2018

জুবায়ের হোসেন ॥ বরিশাল আওয়ামী লীগে কোন বিভেদ নাই। আগামী ৩০ জুলাই সিটি নির্বাচনে সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ কে জয়ী করতে আওয়ামী লীগ ও তার অংগ সংগঠনের প্রতিটি নেতা কর্মী আন্তরিকতার সাথে কাজ করবে। সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর পক্ষে শুধু দলের নেতাকর্মীই নয়, নগরের সাধারন বাসিন্দাও সদিচ্ছায় নির্বাচনী প্রচারনায় প্রফুল্লতার সাথে এগিয়ে আসছে বলে আলাপে জানিয়েছে নগর আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সহ অংগ সংগঠনের নেতা কর্মীরা। এবারের নির্বাচনে প্রমানিত হবে বরিশালে আ’লীগের অবস্থান কতটা শক্তিশালী। এখন আর এই নগর বিএনপির ঘাটি নেই। সাদিক আবদুল্লাহর যোগ্য নেতৃত্বে বরিশাল এখন আওয়ামী লীগের ঘাটিতে পরিণত হয়েছে। যা প্রমানিত হবে আগামি ৩০ জুলাইয়ের সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ’র নগর পিতা হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার মধ্য দিয়ে বলে জানিয়েছে নেতাকর্মীরা। এই নগরীর সাবেক মেয়র শওকত হোসেন হিরনের মৃত্যুর পর প্রায় অভিভাবক শূণ্য হিসেবে পড়ে ছিলো। যুবরতœ সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ শূণ্যের অবস্থান থেকে বরিশাল নগরীকে আবারো আওয়ামী লীগের দূর্গে পরিণত করেছেন। যা তিনি বিভিন্ন রাজনৈতিক কর্মসূচিতে জনসমুদ্র দেখিয়ে প্রমাণ করেছেন বারবার। এলোমেলো হয়ে যাওয়া নেতাকর্মীর ঘরে ঘরে গিয়ে আজকের এই অবস্থান তৈরি করেছেন তিনি। তাই আগামি নির্বাচনে তার জয় অনেকটাই নিশ্চিত বলে আশাবাদ ব্যক্ত করে নেতাকর্মীরা। শুধু তাই নয়, তার জন্য ভালোবাসা দিয়ে নির্বাচনী কাজে অংশগ্রহণে অপেক্ষাই এখন ব্যস্ত সবাই। মনোনয়ন পত্র দাখিলের পর দলের নির্দেশনা অনুযায়ী নির্বাচনী বিধান মেনে আগ্রহের সাথে দিনরাত কাজ করবে দলের প্রতিটি নেতাকর্মী। কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বিভেদ ভুলে যুবরতœকে নগরপিতা হিসেবে নির্বাচিত করে আনা হবে বলে জানায় তারা। এ বিষয়ে দলের বিভিন্ন অংগ সংগঠনের নেতাকর্মীদের সাথে আলাপে এভাবেই প্রতিবেদকের সাথে তাদের অভিব্যক্তি প্রকাশ করেন।

মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি এড. গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল জানান, দেশরতœ শেখ হাসিনা যোগ্যতার প্রমাণ পেয়েই সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহকে এই অঞ্চলে নৌকার কান্ডারি হিসেবে মনোনীত করেছেন। সাংগঠনিক যোগ্যতায় পরিপূর্ণ সাদিক আবদুল্লাহর জন্য কাজ করতে নির্দেশনা পেতে এগিয়ে আসছে সকল নেতাকর্মী। এতে তার শক্তিশালী অবস্থানের প্রমাণ মিলেছে। নির্বাচনের আর মাত্র এক মাস বাকি। মহানগর আ’লীগ ইতিমধ্যে নির্বাচনের সকল প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে প্রায় প্রস্তুত বলে জানান তিনি। দুই এক দিনের মধ্যেই মনোনয়ন পত্র দাখিলের পর দলের প্রত্যেকটি নেতাকর্মী একযোগে প্রচারণা সহ সকল কার্যক্রম শুরু করবে বলে জানান তিনি। আসন্ন নির্বাচনে সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহকে তার কর্মী-সমর্থকরা ভালোবাসা দিয়ে জয়ী করে আনবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

এবিষয়ে মহানগর যুবলীগ নেতা এড. রফিকুল ইসলাম ঝন্টু বলেন, মহানগর যুবলীগের প্রত্যেকটি নেতাকর্মী শুধুমাত্র নির্দেশনার অপেক্ষায় রয়েছে। দক্ষিণাঞ্চলের রাজনৈতিক অভিভাবক আলহাজ্জ আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ এমপি’র সুযোগ্য পুত্র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ আগামি নির্বাচনে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের আওয়ামী লীগের কান্ডারি। তিনি একজন সাংগঠনিক গুণ সম্পন্ন তরুণ নেতা। তার নেতৃত্বের প্রমাণ তিনি এই নগরীর মাটিতে অসংখ্যবার রেখেছেন। শুধু দলের নেতাকর্মীই নয়, তার সরল চলাফেরায় তিনি ইতিমধ্যে সাধারণ মানুষের প্রাণের নেতায় পরিণত হয়েছেন। অবস্থান করে নিয়েছেন দলের প্রতিটি নেতাকর্মীর হৃদয়ে। তিনি এই নগরীর বাসিন্দাদের উপহার দিয়েছেন শক্তিশালী আওয়ামী লীগের একটি সংগঠনের অবস্থান। আগামি নির্বাচনে গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে অংশগ্রহণের মাধ্যমেই নেতা সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ অবশ্যই বিজয়ী হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি। এই জয় আনতে জেলা ও মহানগর যুবলীগের ওয়ার্ড পর্যায়ের প্রতিটি নেতাকর্মী দলের নির্দেশনার অপেক্ষায় রয়েছে। আগ্রহের সাথে তরুণ নেতার হাতকে শক্তিশালী করতে যুবলীগ শতভাগ প্রস্তুত বলে জানান মহানগর যুবলীগের নেতা এড. রফিকুল ইসলাম ঝন্টু।

জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ শামসুদ্দোহা আবিদের সাথে আলাপে জানান, ছাত্রলীগ সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ’র পক্ষে শুরু থেকে উৎসবের আমেজে কাজ করে যাচ্ছে। জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের একজন ভালোবাসার নেতা সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। তার নির্দেশনা মোতাবেক নির্বাচনী বিধান মেনে বরিশাল জেলা ও মহানগরের প্রত্যেক ছাত্রলীগ কর্মী আগামি নির্বাচন পূর্ববর্তী সময়ে কাজ করে যাবে। সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর মতো একজন সুযোগ্য নেতাকে নগর পিতার আসনে আসীন করতে ছাত্রলীগের ওয়ার্ড পর্যায় থেকে শুরু করে স্থানীয় সর্বোচ্চ নেতাকর্মীরা কাজ করবে বলে জানান এই ছাত্রলীগ নেতা। তারাও শতভাগ প্রস্তুত ও মূল দলের নির্দেশনার অপেক্ষায় রয়েছেন বলে জানান তিনি।

এবিষয়ে ১৬নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোরশেদ আলম মিরাজ জানান, কেন্দ্র দিয়ে নির্বাচন প্রস্তুতি কমিটি এখনো হয়নি। সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ বরিশাল নগরে আজকের নেতা নয়। তাকে নগর পিতা হিসেবে দেখার স্বপ্ন আমাদের দীর্ঘদিনের। নতুন করে কাজ শুরুর আসলে কিছুই নেই বলে তিনি আরো বলেন, তিন বছর আগে থেকে এই কাজ দলের সর্বস্তরের নেতাকর্মী করে আসছে। এই নির্বাচন বরিশাল আওয়ামী লীগের জন্য একটি বড় চ্যালেঞ্জ বলে জানান তিনি। কর্মবীর নেতা খ্যাত শওকত হোসেন হিরনের প্রতিচ্ছবি সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। মেধা দিয়ে নগরবাসীর সেবা করায় তিনি সাবেক নেতার মতই মননশীল। তিনি ইতিমধ্যে নগরবাসীর মন জয় করে ফেলেছেন। আগামি এক মাস নির্বাচনী প্রচারণায় দলের প্রত্যেক নেতাকর্মী তার জন্য দিনরাত কাজ করবে। সিটি নির্বাচনে বিশাল জয়ে সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ আওয়ামী লীগের ঘাটি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে প্রমাণ করে দিবেন এ অঞ্চল আব্দুর রব সেরনিয়াবাত এর বরিশাল। আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ’র শক্তিশালী ঘাটি এই দক্ষিণাঞ্চল এবং সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ তার যোগ্য উত্তরসূরি। ইতিমধ্যে নগরীর প্রত্যেকটি ঘরে ঘরে সাদিক আবদুল্লাহ’র বার্তা পৌঁছানো হয়েছে। বিভিন্ন সময় সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয় কর্মসূচির মাধ্যমে দলে দলে নেতাকর্মীরা নগরীর মানুষের দ্বারে দ্বারে পৌঁছে দিয়েছে তার নাম। ভালোবাসা দিয়ে সাদিক আবদুল্লাহ জয় করেছেন সকলের হৃদয়। তাই আগামি একমাস নির্বাচনী প্রক্রিয়া মেনে সকলে মিলে সাদিক আবদুল্লাহ’র হাতকে শক্তিশালী করার কাজ করবে। কর্মীরাও প্রস্তুত প্রফুল্লতার সাথে। এখন শুধু অপেক্ষা নগর পিতার আসনে প্রিয় নেতা সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহকে দেখা।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT