মানিকগঞ্জে বন্যার্তদের সাহায্যে রুটি কর্মসূচি

ঢাকা ব্যুরো ॥ বন্যার্ত মানুষের ত্রাণ সহায়তা দিতে মানিকগঞ্জে রুটি কর্মসূচি হাতে নিয়েছে জেলা আওয়ামী লীগ। এ কর্মসূচির আওতায় প্রতিদিন ৫ হাজার রুটি তৈরি করে ঘরে ঘরে পৌঁছে দেয়া হবে। জনপ্রতি তিনটি রুটি ও সঙ্গে গুড় দেয়া হবে।

মঙ্গলবার সকালে মানিকগঞ্জ প্রেসক্লাব চত্বরে রুটি কর্মসূচির উদ্বোধন করেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক এমপি, স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন এমপি, সংসদ সদস্য মমতাজ, নাঈমুর রহমান দুর্জয়, এসএম কামাল, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট গোলাম মহিউদ্দিন, জেলা প্রশাসক রাশিদা ফেরদৌস, পুলিশ সুপার মাহফুজুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো. আব্দুস সালাম।

সকাল থেকে জেলা আওয়ামী লীগ ও মহিলালীগের নেতা-কর্মী এ রুটিগুলো তৈরি করেন। পরে জেলার ঘিওর উপজেলার ডিএন উচ্চ বিদ্যালয়ে বন্যার্ত ১ হাজার পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন ওবায়দুল কাদের। এ সময় মন্ত্রী তার ব্যক্তিগত তহবিল থেকে প্রত্যেককে নগদ এক হাজার করে টাকা বিতরণ করেন।

ত্রাণ বিতরণ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী। তিনি বলেন, বন্যা চলাকালীন ও পুনর্বাসন পর্যন্ত আওয়ামী লীগ এবং সরকার বন্যার্ত মানুষের পাশে থাকবে। মন্ত্রী আরো বলেন, সরকারের হাতে প্রচুর খাদ্য মজুদ রয়েছে। তা বিতরণেরও সক্ষমতা রয়েছে। কাজেই ত্রাণ নিয়ে কোনো প্রকার ঘাটতি অথবা গাফেলতি হবে না।