ভোলায় বসতঘরে অগ্নিকান্ডে সর্বস্ব হারিয়ে নিঃস্ব ৬টি পরিবার

ভোলা অফিস॥ ভোলা শহরতলীর দক্ষিণ চরনোয়াবাদ গ্রামে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে পুড়ে গেছে একই বাড়ির ৬টি বসত ঘর। আগুনে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, আসবাবপত্র পুড়ে প্রায় ৩০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। তবে লোকজনের কোন ক্ষতি হয়নি। বুধবার রাত সাড়ে ৩ টায় বৈদ্যুতিক সর্টসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত্র হয়। দমকল বাহিনীর সদস্যসহ স্থানীয়রা প্রায় দেড় ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।
ক্ষতিগ্রস্তরা জানিয়েছেন, দক্ষিণ চরনোয়াবাদ গ্রামের মো. হাসেম মিয়ার ঘরে বিদ্যুতের মিটার থেকে আগুন লাগে। মুহূর্তে আগুন চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে। ওই বাড়ির ৯টি ঘরের মধ্যে হাসেম, ছিদ্দিক, বকুল বিবি, শাহেল আলম রাঢ়ী, শাহানাজ ও মনোয়ারার ঘর ৬টি পুড়ে ছাই হয়ে যায়। বাড়ির লোকজনের ডাক চিৎকারে আশ পাশের লোকজন ছুটে এসে ৩টি ঘর রক্ষা করে। স্থানীয়রা জানান, ঘুমের মধ্যে দাউ দাউ করে আগুন জ্বলতে দেখে ওই বাড়ির লোকজন ডাক-চিৎকার করে ওঠে। ছেলে সন্তান নিয়ে পরিবারের প্রধানরা নিরাপদে আসতে পারলে ঘর ও ঘরের মালামাল রক্ষা করতে পারে নি।
ভোলা ফায়ার সার্ভিসের ভারপ্রাপ্ত স্টেশন অফিসার মোঃ সাহাবুদ্দিন জানান, খবর পেয়ে তাদের কর্মীরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণের আনার আগেই ৬টি ঘর পুড়ে ছাই হয়ে যায়। অপর ৩টি ঘর তারা রক্ষা করতে পেরেছেন।
গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোশারেফ হোসেন ও ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ ইউনুছ সরেজমিনে গিয়ে ক্ষতিগ্রস্তদের সমবেদনা জানান এবং তাৎক্ষণিক ৩০ হাজার টাকা অনুদান দেন। এছাড়া ক্ষতিগ্রস্তদের পুণর্বাসনের জন্য উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় সহায়তার আশ্বাস দেন।