বিসিকে আধুনিকমানের জেএসএম মিনারেল ওয়াটার উৎপাদনে যাচ্ছে

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ বরিশাল শিল্প নগরীতে লেগেছে উন্নয়নের ছোয়া। গত এক বছরে বিসিক শিল্প নগরীতে গড়ে উঠেছে বেশ কিছু শিল্প প্রতিষ্ঠান। সেই সাথে বাড়ছে কর্মসংস্থানও। সেই ধারাবাহিকতা বজায় রেখে অচিরেই কাউনিয়ার বিসিক শিল্প নগরীতে চালু হচ্ছে বোতলজাত বিশুদ্ধ পানি উৎপাদন কারখানা। জেএসএম মিনারেল ওয়াটার নামক প্রতিষ্ঠানটির কার্যক্রম শীঘ্রই শুরু হচ্ছে বলে জানান সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।
জানাগেছে, বরিশাল নগরীর কাউনিয়া বিসিক শিল্প নগরীতে এই প্রথম বারের মত গড়ে উঠছে বিশুদ্ধ পানি জেএসএম মিনারেল ওয়াটার নামক পানি উৎপাদন এবং সরবরাহ কারখান। বাকেরগঞ্জ উপজেলার সন্তান এবং ঢাকার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মো. জসিম উদ্দিন সিকদারের মালিকানাধীন এই প্রতিষ্ঠানে মিনারেল ওয়াটার উৎপাদনে কার্যক্রম শেষ পর্যায়।
প্রতিষ্ঠানটির মালিক মো. জসিম উদ্দিন সিকদার জানান, বরিশালের প্রেক্ষাপটে এটাই প্রথম কারখানা। যেখানে কোন প্রকার হাতের ছোয়া ছাড়াই প্রস্তুত হবে বোতলজাত মিনারেল ওয়াটার। বিসিক শিল্প এলাকার প্রায় ৩৬ হাজার স্কয়ার ফুট জমিতে গড়ে ওঠা জেএসএম মিনারেফ ওয়াটার কারখানা চালুর লক্ষে ইতোমধ্যে সরাসরি মালয়েশিয়া ও চায়না থেকে আমদানি করা হয়েছে ৩ কোটি টাকা মূল্যের ইনজেকশন মোল্ডিং, ক্যাপসিলিং, ফিলিং সহ অন্যান্য মূল্যবান মেশিনারীজ। কারখানা চালু হলে কোন প্রকার হাতের ছোয়া ছাড়াই এ মেশিনে প্রতি ঘন্টায় ৬ হাজার লিটার বিশুদ্ধ পানি বোতল জাত করা যাবে। যা বরিশালে বিশুদ্ধ পানির চাহিদা পুরনে গুরুত্বপূর্ণ ভমিকা রাখতে সহায়তা করবে।
জসিম উদ্দিস সিকদার আরো জানান, বরিশালে শিল্প কারখানার উন্নয়নের পাশাপাশি অনেক যুবসমাজের বেকারত্ব দূর হবে। তিনি বলেন, তার এই প্রতিষ্ঠানটিতে কমপক্ষে একশ শ্রমিক, কর্মকর্তা-কর্মচারীর কর্মসংস্থান হবে। এতে এই অঞ্চলের বেকারত্ত্বও অনেকটা দুর হবে বলে মনে করেন এই ব্যবসায়ী।
শিল্প নগরীর ব্যবস্থাপক জানান, আমার জানামতে বরিশালে ইতোপূর্বে কোন বিশুদ্ধ এবং বোতলজাত পানি উৎপাদন কারখানা গড়ে ওঠেনি। এই প্রথম বারই বিসিকে এমন কারখানা হচ্ছে। তিনি বলেন, গত এক বছরে বিসিক শিল্প নগরীতে বেশ কিছু করাখানা গড়ে উঠেছে। যা দিয়ে বরিশালের অর্থনৈতিক জোগান অনেকটা স্বাভাবিক হয়েছে। তার পাশাপাশি শত শত বেকার মানুষের কর্মসংস্থান হয়েছে।