বিএনপির সাবেক এমপি আবুল হোসেনসহ ৮ নেতা-কর্মি জেলে

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বাকেরগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক সাংসদ আবুল হোসেন খানসহ ৮ নেতাকর্মির জামিন আবেদন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে পাঠিয়েছে আদালত। গতকাল মঙ্গলবার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে হাজির হয়ে তারা জামিনের আবেদন করেন। আদালতের বিচারক মো. আনোয়ারুল হক জামিন আবেদন গ্রহন করেননি।
তবে অবরোধের সময় জনগনকে ভয় ভীতি ও যান চলাচলে বাধাঁদানে পুলিশের করা মামলার আসামী হিসেবে অপর বিএনপি নেতা নাসির জমাদ্দারের জামিন মঞ্জুর করা হয়েছে। জেল হাজতে যাওয়া অন্য নেতা-কর্মীরা হলো-মকবুল খান, কুদ্দুস মিয়া, নজরুল ইসলাম, সিরাজ সিকদার,শাহিন সিকদার, শাহজাহান খান ও রুহুল তালুকদার। চলতি বছরের ২৬ জানুয়ারী সরকার বিরোধী আন্দোলনের নামে অবোরোধ চলাকালে বাকেরগঞ্জ উপজেলার দুধল ইউনিয়নের পেয়ারপুর-গোমা সড়কে আগুন জ্বালিয়ে জনগনকে ভয় ভীতি ও যান চলাচলে বাধাঁ দেয়। এ ঘটনায় বাকেরগঞ্জ থানার এসআই উত্তম কুমার দাস বাদী হয়ে একটি মামলা করে। মামলায় সে ১৮ নামধারী ও অজ্ঞাতনামা ৩০ জনকে আসামী করেন। শর্শী তদন্ত কেন্দ্রের এসআই মোশারেফ হোসেন ১৫ মে ২৪ জনকে অভিযুক্ত করে চার্জশীট জমা দেয়। এর পর থেকে এ বিএনপি নেতারা আত্মগোপণ ছিলেন। আদালত তাদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারী পরোয়ানা জারি করে। সেকারনে সকলে আত্মসমর্পন করেন।