বরগুনায় জমি দখল করে ঘর নির্মাণের চেষ্টা

বরগুনা প্রতিবেদক ॥ আইডিয়াল কলেজ সংলগ্ন পশ্চিম পার্শ্বে বরগুনা পৌরসভাধীন ৬নং বড়ইতলা ওয়ার্ডের শাহনাজ বেগমের  জমিতে জোর পূর্বক জমি দখল ও ঘর নির্মাণ করার চেষ্টা চলছে এমন অভিযোগ করেছেন আবু জাফরের স্ত্রী শাহনাজ বেগম নিজেই। দীর্ঘদিন ধরে সম্পত্তি নিয়ে দেওয়ানী মোকদ্দমা চলিয়া আসিতেছে। যাহা বর্তমানে সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে স্থিতিবস্থার আদেশ বহাল রাখা রয়েছে।
মামলা সুত্রে জানাগেছে, মামলায় জমি পাইবেনা জেনে এবং শাহনাজের স্বামী আবু জাফর অন্য আরেকটি মামলায় জেল হাজতে থাকার সুযোগে পরিকল্পিত ভাবে গত শনিবার ভোর রাতে আলতাফ হোসেন (৬০), মোঃ রনো (৩২), মোঃ আকতারুজ্জামান (বাবু) (৩৫) ও মোসাঃ আল্লাদি বেগম (৫০)সহ আরো অজ্ঞাত ৫০/৬০ জন সন্ত্রাসী মাস্তান প্রকৃতির লোকজন নিয়ে দেশীয় অ¯্রসহ শাহনাজের বসত বাড়ীতে অনাধিকার প্রবেশ করে। পরে ঘরের সামনের ও পেছনের দরজায় তালা দিয়ে, বেআইনি দাপট দেখিয়ে জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করে ঘর-দরজা, লাগানো গাছ কেটে ফেলে ও আসবাবপত্র কোপাইয়া ভাংচুর করে ক্ষতি সাধন করে। খবর পেয়ে বরগুনা থানা পুলিশ শাহনাজের বাড়ী পরিদর্শন করেছেন।
শাহনাজ জানিয়েছেন, নিজের পরিবারের নিরাপত্তার জন্য গত ৩ আগষ্ট বরগুনা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করি। কিন্তু ওরা আমার বাড়ীতে প্রবেশ করে ঘর-দরজা, গাছ, ভাংচুর করে ক্ষতি সাধন করেছে এবং পুকরের মাছ ধরে নিয়ে গেছে। এই সন্ত্র¿াসীদের হাত থেকে রেহাই পেতে গত ২৩ আগষ্ট বরগুনা থানায় মামলা করলেও এখন পর্যন্ত আসামীদেরকে ধরতে সক্ষম হয়নি পুলিশ। ওদের অব্যাহত হুমকিতে কোন উপায় না পেয়ে সঠিক বিচারের দাবীতে বরগুনা পুলিশ সুপারের বরাবরে লিখিত আবেদন করেছি। উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে এ অন্যায়ের বিচার দাবী করছি। যাতে আমি ওদের হাত থেকে রেহাই পেতে পারি।
বরগুনা থানার এস আই শহিদুল ইসলাম খান (তদন্ত) বলেন, বিরোধীয় জমিতে আলতাফ হোসেন গং ঘর তোলার চেষ্টা করছে এমন অভিযোগে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তবে ওই জমির দু’ পক্ষেরই কাগজ পত্র রয়েছে। কাগজ পত্রের বিষয়টি দেখবে আদালত। এ মামলার ব্যাপারে তদন্ত চলছে।