পলিটেকনিকের আলোচিত কোপাকুপির মামলায় রাজীবসহ ছাত্রলীগের ২৩ আসামী খালাস

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ নগরীর পলিটেকনিক ইনষ্টিটিউটের ছাত্রদের কুপিয়ে জখম করার আলোচিত মামলায় জেলা ছাত্রলীগের সম্পাদক রাজ্জাক সহ ২৩ নেতাকর্মীকে খালাস দিয়েছে আদালত। গতকাল মঙ্গলবার মামলার রায় শুনানীর দিনে অভিযুক্তদের উপস্থিতিতে এ রায় দেন মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বেগম নুসরাত জাহান। খালাস প্রাপ্ত অন্যান্যরা হলো, সাইদুল ইসলাম, মোস্তাফিজুর রহমান, মিজানুর রহমান, শেখর দাস, মোঃ আমিন, মেহিদী হাসান, মোশারফ মোল্লা, আবু সায়েম সরদার, মোঃ ইউসুফ, মাকছুদুর রহমান সেলিম, সাজিদ আহাম্মেদ, এসএম রাকিবুল হাসান, আ.খ.ম রাজীব হোসেন। আরও রয়েছে রেজাউল করিম রেজা, কামরুজ্জামান জুয়েল ওরফে চাকমা জুয়েল, অনুপ কুমার রায়, মহিউদ্দিন ওরফে রাইফেল মহিউদ্দিন, আমিনুল ইসলাম হিমেল, মহিউদ্দিন মুহিন, ইমরান হোসেন, হান্নান ও মোঃ ইমরান হোসেন। আদালত সূত্রে জানাগেছে, ২০১০ সালের ৪মে সকাল সাড়ে ১০টায় ছাত্রনামধারী ও বহিরাগত সন্ত্রাসীরা ধারালো অস্ত্র, রামদা, চাইনিজ কুড়ালসহ প্রবেশ করে। এ সময় ইনস্টিটিউটের সাইকেল স্ট্যান্ডের সামনে একপক্ষ অপরপক্ষকে এলোপাথারি ভাবে কোপায়। এ সময় কলেজের ছাত্রদেরও কুপিয়ে গুরুতর জখম করে মোবাইল ফোন ও নগদ টাকা নিয়ে যায়। এ ঘটনায় ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ মীর মোঃ মোশাররফ হোসেন অজ্ঞাত ৩০/৩৫ জনকে আসামী করে কোতয়ালি মডেল থানায় মামলা করে। এ প্রেক্ষিতে থানার এসআই কমলেশ হালদার তদন্ত শেষে ২০১১ সালের ৬মে উল্লেখিত ২৩ জনকে অভিযুক্ত করে চার্জশীট জমা দেয় এবং ২ জনের অব্যহতি আবেদন করে। এরা হলো সৈবাল হোসেন, ও সৌরভ। এর ধারাবাহিকতায় গতকাল ধার্য তারিখে বিচারক ১৪ জনের মধ্যে ৩ জনের সাক্ষ্য নিয়ে সবাইকে খালাস প্রদান করেন।