নাশকতা ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে পুলিশ

রুবেল খান॥ জামায়ত-শিবিরের ডাকা হরতালের নামে নাশকতা ঠেকাতে  কঠোর অবস্থানে বরিশাল মহানগর পুলিশ। এজন্য গতকাল বুধবার রাত থেকেই নগরীতে ঝটিকা অভিযান অব্যাহত রেখেছেন তারা। এর পাশাপাশি মহানগরীর গুরুত্বপূর্ন পয়েন্টে বসানো হয়েছে পুলিশের চেক পোষ্ট।
এদিকে জামায়াত শিবিরের ডাকা হরতাল প্রতিহত করতে মাঠে থাকার ঘোষণা দিয়েছে বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগ। হরতালের নামে নাশকতা সৃষ্টির চেষ্টা বা জানমালের ক্ষতি হতে দেখলে তাতে বাঁধা বাধা প্রদানের জন্য প্রস্তুতি নিয়েছেন তারা।
সূত্রমতে, একাত্তরে মানবতা বিরোধী অপরাধে অভিযুক্ত জামায়াতের আমীর মতিউর রহমান নিজামীকে মৃত্যুদন্ড দিয়েছে আদালত। আদালতের দেয়া মৃত্যুদন্ডাদেশ প্রত্যাহারের দাবীতে দেশব্যাপী ৭২ ঘন্টার হরতাল কর্মসূচি ঘোষণা দিয়েছে জামায়াতের কেন্দ্রীয় কমিটি। সে অনুযায়ী আজ বৃহস্পতিবার, রবিবার ও সোমবার দেশ ব্যাপী হরতাল কর্মসূচি পালন করবে জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীরা।
এদিকে আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে জামায়াত-শিবিরের হরতালের নামে নাশকতা ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে রয়েছেন বরিশাল পুলিশ প্রশাসন। বিশেষ করে বরিশাল মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে নেয়া হয়েছে নানামুখী নিরাপত্তা ব্যবস্থা। যানবাহনে করা হচ্ছে তল্লাশি।
বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের সহকারী পুলিশ কমিশনার (কোতয়ালী) এমএম মাহমুদ হাসান আজকের পরিবর্তনকে জানান, বিএমপি কমিশনারের নির্দেশে সরকারের ভাবমূর্র্তি ঠিক রাখতে এবং সাধারণ জনগনের জান-মাল রক্ষায় পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার রয়েছে। যার ফলে হরতালের নামে নাশকতা সৃষ্টির কোন সুযোগ নেই।
তিনি বলেন, হরতালে নিরাপত্তা নিশ্চিতের লক্ষে রাত থেকেই মহানগরীতে তৎপর রয়েছে বিএমপি পুলিশ। প্রতিটি গুরুত্ব পূর্ণ পয়েন্টে বসানো হয়েছে চেকপোষ্ট। এর মধ্যে নগরীর নথুল্লাবাদ বাস টার্মিনাল, রূপাতলী বাস টার্মিনাল, জেল খানার মোড়, আমতলার মোড়, জিলা স্কুল মোড়, সদর রোডের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে, লঞ্চ ঘাট, চৌমাথা, নতুন বাজার, বিএম কলেজের সামনে, কাশিপুর চৌমাথা ও গরিয়ারপাড়ে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়া বিদ্যুৎ অফিস, আওয়ামীলীগের দলীয় কার্যালয়ে ও ব্যাংক সহ গুরুত্বপূর্ন স্থাপনাগুলোতে নাশকতা ঠেকাতে পুলিশ মোতায়েন থাকবে। এর পাশাপাশি বাড়ানো হয়েছে টহল টিম। ভ্রাম্যমান পেট্রোল টিমের থাসে থাকছে সাদাপোশাকে পুলিশের গোয়েন্দা টিম। এসি মাহমুদ বলেন, সর্বোচ্চ নিরাপত্তা বেষ্টুনিতে ঘিরে রাখা হয়েছে বরিশাল মহানগরীকে।
বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের ডিসি (হেড কেয়াটার) সোয়েব আহম্মেদ বলেন, হরতালের নামে সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট করে সাধারণ জনগনের জান-মালের ক্ষতি হতে দেয়া যাবে না। তাই জামায়াত-শিবিরের নাশকতা ঠেকাতে বিএমপি পুলিশ তৎপর রয়েছে। এজন্য পুলিশের তৎপরতার মধ্যে দিয়ে মহানগরীতে নাশকতার সুযোগ নেই বলেও জানান তিনি।
এদিকে কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ আজকের পরিবর্তনকে জানান, হরতালের নামে জামায়াত শিবিরের নৈরাজ্য এবং নাশকতামূলক কর্মকান্ড ঠেকাতে আওয়ামীলীগ, যুবলীগ এবং ছাত্রলীগ সক্রিয় ভাবে মাঠে থাকবে। এছাড়া হরতালের বিরূদ্ধে আজ সকালে আওয়ামীলীগ ও যুবলীগের উদ্যোগে বের করা হবে বিক্ষোভ মিছিল। যুবলূগ নেতা
সাদিক আব্দুল্লাহ বলেন, প্রশাসনের পাশাপাশি যুবলীগ এবং ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে অবস্থান করবে। কোন প্রকার নাশকতা বা নৈরাজ্যকর পরিস্থিতি সৃষ্টি করলে তা প্রতিহত করে সংশ্লিষ্টদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে সোপর্দ করা হবে।