নগরীতে প্রকাশ্যে স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে জখম

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ প্রকাশ্য দিবালকে নগরীর এ.কে (আসমত আলী) ইনস্টিটিউটের এক ছাত্রকে কুপিয়ে জখম করেছে জিলা স্কুলের ছাত্ররা। গতকাল বুধবার দুপুর ১টার দিকে শহরের প্রাণ কেন্দ্র সদর রোডের হোটেল আলী ইন্টারন্যাশনালের বিপরীতে এই ঘটনা ঘটে। আহত স্কুল ছাত্র মো. মিরাজ হোসেন (১৩) কে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সার্জারী বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে। সে নগরীর ভাটিখানা সোনালী আইসক্রীম মোড় এলাকার কবির হোসেন’র ছেলে।
আহত রিয়াজ জানায়, জিলা স্কুলের ছাত্র তিহান ও সাতরাজ এর সাথে পূর্বে থেকে তার বিরোধ চলছিলো। এর জের ধরে গতকাল বুধবার সে স্কুল থেকে ফেরার পথে সদর রোডের মেসার্স সানী এন্টারপ্রাইজের নামক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে তিহান ও সাতরাজ সহ তাদের সহযোগিরা ধারালো অস্ত্র নিয়ে তার উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় এলোপাথারী কুপিয়ে স্কুল ছাত্রের মাথা, হাত এবং পা সহ বিভিন্ন স্থানে রক্তাক্ত জখম করে। পরবর্তীতে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে।
প্রত্যক্ষদর্শী সানী এন্টারপ্রাইজের মালিক নাহিদ খান বলেন, ছাত্রটি তার দোকানের কাছেই দাড়িয়ে ছিলো। এসময় হঠাৎ করে এসেই কতিপয় যুবক তাকে কুপিয়ে জখম করে। তখন আত্মরক্ষায় রক্তাক্ত অবস্থায় ছাত্রটি তার দোকেনের মধ্যে আশ্রয় নেয়।
কোতয়ালী মডেল থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এ.এস.আই) খোকন চন্দ্র দে জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গেলেও হামলাকারীদের খুঁজে পাওয়া যায়নি। তবে ঘটনাস্থল থেকে রামদার একটি বাট উদ্ধার করা হয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ঘনটার সূত্রপাত হতে পারে ধারানা করে তিনি বলেন, এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত থানায় মামলা বা অভিযোগ পাননি তারা।