দুনীর্তির মামলায় সড়ক ও জনপথের সহকারী কাম মুদ্রাক্ষরিকের বিরুদ্ধে চার্জশীট জমা

সাইদ মেমন ॥ দুর্নীতি করে সম্পদ অর্জনের মামলায় সড়ক ও জনপথ বিভাগের বরিশালের অতিরিক্ত বিভাগীয় প্রকৌশলীর কার্যালয়ে অফিস সহকারী কাম মুদ্রাক্ষরিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ পত্র (চার্জশীট) জমা দিয়েছে দুদক। সংশ্লিষ্ট থানা ও আদালতে চার্জশীট জমা দিয়েছেন দুদক কর্মকর্তা মো. তানভীর আহম্মেদ। জ্ঞাত আয় বর্হিভুত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের অভিযোগে অভিযুক্ত সহকারী কাম মুদ্রাক্ষরিক হলেন-একেএম সেলিম হাওলাদার। নগরীর ডা. খাদেম হোসেন সড়কের বাসিন্দা সেলিম হাওলাদার বাউফলের বিলবিলাস গ্রামের মৃত হাতেম আলী হাওলাদারের ছেলে। পলাতক থাকায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. তানভীর আহম্মেদ অভিযুক্ত সেলিম হাওলাদারের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারী ও দুনীর্তির মাধ্যমে অর্জন করা মালামাল ক্রোকের পরোয়ানা জারীর সুপারিশ করেছেন।
২০১১ সালের ১৮ এপ্রিল কোতয়ালী মডেল থানায় মামলা করেছিলো তৎকালীন সহকারী পরিচালক ওয়াজেদ আলী গাজী। মামলায় তার বিরুদ্ধে দুদকে জমা দেয়া বিবরনীতে ৩৬ লাখ ১১ হাজার ২৩০ টাকার সম্পদ অর্জনের তথ্য গোপন রাখে। এছাড়া ২৩ লাখ ৭৬ হাজার ৯০৬ টাকার সম্পদ অর্জনের উৎস্য সম্পর্কে কোন তথ্য দিতে পারেনি। তাই তথ্য গোপন ও জ্ঞাত আয় বহির্ভুত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে অভিযুক্ত করা হয়েছে।