দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাকিস্তানের রুদ্ধশ্বাস জয়

বিডিনিউজ ॥ চেষ্টার কমতি ছিল না এবি ডি ভিলিয়ার্সের। তবে দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়কের ব্যাটিং বীরত্বও ঠেকাতে পারেনি পাকিস্তানকে। বিশ্বকাপের অন্যতম ফেভারিটদের ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে ২৯ রানে হারিয়ে টানা তৃতীয় জয় তুলে নিয়েছে সাবেক চ্যাম্পিয়নরা। এক সময়ে বড় সংগ্রহের সম্ভাবনাই জাগিয়েছিল পাকিস্তান। কিন্তু শেষ দিকে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারানোয় আড়াইশ’ পর্যন্তও যেতে পারেনি তারা। দুই বল বাকি থাকতে ২২২ রানে অলআউট হয়ে যায় পাকিস্তান। দুইবার বৃষ্টির বাধায় পড়া ম্যাচে ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে জয়ের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকার লক্ষ্য দাঁড়ায় ২৩২ রান। পাকিস্তানের পেসারদের মারাত্মক বোলিংয়ে ভীষণ বিপদে পড়া প্রোটিয়াদের লড়াইয়েই রেখেছিলেন ডি ভিলিয়ার্স। কিন্তু শেষ রক্ষা করতে পারেননি, ৩৩ ওভার ৩ বলে ২০২ রানে অলআউট হয়ে যায় দক্ষিণ আফ্রিকা। বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে এটাই পাকিস্তানের প্রথম জয়। আগের তিন বারই প্রোটিয়াদের কাছে হেরেছিল তারা। টানা তৃতীয় এই জয়ে কোয়ার্টার-ফাইনালের পথে আরেক ধাপ এগিয়েছে পাকিস্তান। শেষ ম্যাচে আয়ারল্যান্ডকে হারালে কোনো সমীকরণই কষতে হবে না সাবেক চ্যাম্পিয়নদের।
সংক্ষিপ্ত স্কোর:
পাকিস্তান: ৪৬.৪ ওভারে ২২২ (সরফরাজ ৪৯, শেহজাদ ১৮, ইউনুস ৩৭, মিসবাহ ৫৬, মাকসুদ ৮, আকমল ১৩, আফ্রিদি ২২, ওয়াহাব ০, সোহেল ৩, রাহাত ১, ইরফান ১*; স্টেইন ৩/৩০, মরকেল ২/২৫, অ্যাবট ২/৪৫, তাহির ১/৩৮, ডি ভিলিয়ার্স ১/৪৩)
দক্ষিণ আফ্রিকা: ৩৩.৩ ওভারে ২০২ (ডি কক ০, আমলা ৩৮, দু প্লেসি ২৭, রুশো ৬, ডি ভিলিয়ার্স ৭৭, মিলার ০, ডুমিনি ১২, স্টেইন ১৬, অ্যাবট ১২, মরকেল ৬*, তাহির ০; রাহাত ৩/৪০, ওয়াহাব ৩/৪৫, ইরফান ৩/৪০)
ম্যাচ সেরা: সরফরাজ আহমেদ।