টিয়াখালী থেকে অজ্ঞাত ব্যক্তির বিচ্ছিন্ন পা উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ নগরীতে মানুষের একটি কাটা পা নিয়ে ব্যাপক রহস্যের পাশাপাশি তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল বুধবার নগরীর বর্ধিত এলাকা ২৬ নং ওয়ার্ডে টিয়াখালী সড়কের বিশ্বাসবাড়ি সংলগ্ন থেকে পা টি উদ্ধার করে পুলিশ। দুপুর দেড়টার দিকে দিকে পাটি উদ্ধারের পর ডিএনএ পরীক্ষার জন্য শেবাচিমের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। খবর পেয়ে প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও কাটা পায়ের রহস্য উদঘাটন করতে পারেনি তারা।
টিয়াখালী সড়কের বাসিন্দা আব্দুর রহিম সরদারের ছেলে মজিবর রহমান সরদার জানান, বেলা সাড়ে ১২টার দিকে তিনি সহ স্থানীয় কয়েকজন রাস্তার পাশে ডোবার ধারে একটি কাটা পড়ে থাকতে দেখেন। পরে তারা কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশকে সংবাদ দেন। তবে পাটি কার বা ঐ স্থানে কিভাবে এলো সে সম্পর্কে কিছু জানাতে পারেননি তিনি।
কোতয়ালী মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কবির হোসেন জানান, তারা খবর পেয়ে ঘটনা স্থলে গিয়ে কাটা পা টি উদ্ধার করেছেন।
তিনি বলেন, মানুষের পরিত্যক্ত পা টি প্রাথমিক ভাবে বাম পা হিসেবে সনাক্ত করা হয়েছে। ঐ পাটি হাটুর নিচের অংশ থেকে কাটা এবং মাংশ থেতলানো অবস্থায় পাওয়া গেছে। এছাড়া পায়ের পাশে একটি শার্ট ও কালো রং এর একটি চাদরের কিছু অংশ পরা ছিলো। এগুলো সব আলামত হিসেবে জব্দ করা হয়েছে। কাটা পায়ের পাশাপাশি শার্ট ও চাদরটির ডিএনএ পরীক্ষার জন্য সুরত হাল শেষে মর্গে প্রেরণ করেছেন।
তিনি বলেন, ডিএনএ পরীক্ষার প্রতিবেদন পেলে পা টি পুরুষ না মহিলা’র, বয়স নির্ধারন এবং কিভাবে কাটা হয়েছে সে সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া যাবে। তবে এ ঘটনায় প্রাথমিক ভাবে একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।
এদিকে ঘটনার পর পরই উপ-পরিচালক মো. গোলাম আব্দুর রউফ, সহকারী পুলিশ কমিশনার (কোতয়ালী) আব্দুল কাইয়ুম সহ পুলিশের অন্যান্য কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তবে পাওটি উদ্ধারের পরে টিয়াখালী সহ নগর জুড়ে ব্যাপক তোলপাড় এবং রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে।