জালটাকাসহ অন্তঃসত্ত্বা নারী আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ নগরী থেকে জাল টাকাসহ অন্তঃসত্ত্বা নারীকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার আটককৃত নারীর দাবি উদ্ধার হওয়া জাল নোট ছাত্রী মেসের পাচিকা হিসেবে কাজের বেতন হিসেবে পেয়েছে। তার দাবী পুলিশের কাছে বিশ্বাসযোগ্য না হওয়ায় মামলা করেছে তারা।
আটককৃত ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা নাজমা বেগম (৩০) নগরীর আমতলার মোড় পানির ট্যাংকি এলাকার সেলিম মিয়ার ভাড়াটিয়া। সে নলছিটি উপজেলার শহিদ ফকিরের স্ত্রী।
মহানগরীর কাউনিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) অমল জানান, কাউনিয়া প্রধান সড়কের তালুকদার বাড়ির সামনে সায়েম স্টোরে মালামাল ক্রয় করে ওই নারী। পরে দোকানীকে ৫ শত টাকার একটি জাল নোট দেয়। তখন দোকানী পুলিশকে অবহিত করে। তারা গিয়ে নারীকে আটক করে তল্লাশী করে আরো দুইটি করে ১০০০ ও ৫০০ টাকার জাল নোট পেয়েছেন।
আটক নারী নাজমা বেগম জানান, তিনি নগরীর সিএন্ডবি রোড এলাকার জান্নাত ভবনে একটি ছাত্রী মেসে রান্নার কাজ (পাচিকা) করেন। সেখান থেকে বেতন হিসেবে ওই টাকা পেয়েছে। তা জাল হিসেবে সনাক্ত হয়েছে বলে তিনি দাবী জানান।
কিন্তু ওসি কাজী মাহবুবুর রহমান বলেন, তার দাবির যুক্তি বিশ্বাসযোগ্য না। তাকে একটি জাল নোট কারবারীরা ব্যবহার করেছে। সে নতুন হওয়ায় ধরা পড়েছে। চক্রটি সনাক্ত ও গ্রেপ্তারের জন্য নারীকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। এই জন্য তার বিরুদ্ধে পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করেছে।