ছাত্রী শ্লীতাহানির দন্ড জুতাপেটা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ মুলাদীদে মাদ্রাসায় প্রবেশ করে ছাত্রীর শ্লীতাহানি করায় আটক বখাটেকে জুতাপেঠা করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার উপজেলার ইসলামিয়া সিনিয়র মাদ্রাসায় এই ঘটনা ঘটে। ছাত্রীর শ্লীতাহানি করা বখাটে মিরাজ খান পৌর এলাকার তেরচর মহল্লার জাহাঙ্গীর খানের ছেলে।
মাদ্রাসার অধ্যক্ষ এটিএম সিদ্দিকুর রহমান জানান, দুপুরে মাদ্রাসার ছাত্রী মিলনায়তন কক্ষে অবস্থান করা সপ্তম শ্রেনী পড়–য়া ছাত্রীকে জড়িয়ে ধরে বখাটে মিরাজ খান। তখন ছাত্রীর ডাকচিৎকারে মাদ্রাসার শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা এগিয়ে এসে বখাটে মিরাজকে আটক করে থানার ওসিকে অবহিত করা হয়।
ওসি মাদ্রাসায় পৌছানোর পূর্বে পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও পৌর মেয়র সফিকুজ্জামান রুবেল মোবাইলে ফোন করে বিষয়টি তিনি সমাধান করার কথা জানিয়ে দেয়।
পৌর মেয়র শফিকুজ্জামান রুবেল জানান, ওই ঘটনায় মাদ্রাসায় স্থানীয় ২ শতাধিক লোকের উপস্থিতিতে মিরাজকে তার বাবা জুতা পেটা করে। একই সাথে ভবিষ্যতে আর এই ঘটনা ঘটবে না মর্মে তার বাবা জাহাঙ্গীর খান মুচলেকা দেয়।
স্থানীয়রা অভিযোগ করেছে, পৌর মেয়র আ’লীগ নেতার ক্যাডারদের ভয়ে কন্যার শ্লীতাহানির অভিযোগ থানায় দিতে ব্যর্থ হয়েছে পরিবার। বখাটের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দিতে ছাত্রীর পরিবার রওনা হলে পথিমধ্যে মেয়রের ক্যাডাররা তাদের ভয়ভীতি ও হুমকি দেয়। এতে পরিবার থানায় অভিযোগ দিতে ব্যর্থ হয়েছে।