চুরির অভিযোগে শেবাচিমের কর্মচারী আটকে বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ চুরির অভিযোগে সহকর্মীকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে বিক্ষোভ করেছে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চতুর্থ শ্রেনী কর্মচারীরা। গতকাল শনিবার বেলা ১১টার দিকে মেডিকেল কলেজ অধ্যক্ষের কার্যালয়ের সামনে এই বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেন তারা। আজ পূনরায় শেবাচিম হাসপাতাল পরিচালকের রুম ঘেরাও কর্মসূচি পালনের কথা রয়েছে চতুর্থ শ্রেনীর সরকারী কর্মচারী কল্যান সমিতির নেতৃবৃন্দের।
সমিতির সভাপতি মোদাচ্ছের আলী কবির জানান, মেডিকেল কলেজের ডক্টরর্স কোয়ার্টারের বাসিন্দা বক্ষব্যাধি চিশেষজ্ঞ ডা. মাসুম আহম্মেদ এর ঘরে চুরি সংঘটিত হয়। এসময় চোর চক্র ঘরের স্বর্ণালংকার চুরি করে নিয়ে যায়।
এদিকে ঐ চুরির ঘটনায় কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ ঐ রাতে দায়িত্বে থাকা নৈশ প্রহরী নয়ন হাওলাদার ওরফে নায়াকে সন্দেহমূলক ভাবে গ্রেফতার করে। কিন্তু পরবর্তীতে চুরি মামলায় নায়ার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেছে পুলিশ।
মোদাচ্ছের কবির দাবী করে বলেন, কর্মচারী নয়া ঘটনার এক সপ্তাহ পূর্বে থেকে ডক্টর্স কোয়ার্টারে রোষ্টার অনুযায়ী দায়িত্ব পালন শুরু করে। তাছাড়া সে কোন প্রকার নেশা দ্রব্য সেবন করে না। কিন্তু পুলিশ অভিযোগ পত্রে নায়াকে মাদক সেবনকারী উল্লেখ করেছে। যা সম্পূর্ণ অন্যায়। আর তাই সহকর্মী নয়নের মুক্তির দাবীতে তারা এ আন্দোলন শুরু করেছেন। তাকে অবিলম্বে মুক্তি না দিলে আরো বড় ধরনের কর্মসূচি দেয়া হবে বলেও জানান কর্মচারী সমিতির সভাপতি মোদাচ্ছের কবির।