চিকিৎসকের উপর হামলাকারী শেবাচিম’র নার্স জেলে

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ হামলার শিকার চিকিৎসকের করা মামলায় শেবাচিম হাসপাতালের সিনিয়র সেবিকা এলিজা বেগমকে জেলে পাঠিয়েছে আদালত। গতকাল সোমবার অতিরিক্ত চীফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করেন সে। বিচারক অমিত কুমার দে জামিন আবেদন না মঞ্জুর করে তাকে জেলে পাঠানোর নির্দেশ দেন। সে বান্দরোডস্থ কমিশনার বাড়ির ভাড়াটিয়া ব্যবসায়ী শাহ আলম ভূইয়ার স্ত্রী। মামলাসূত্রে জানা গেছে, ২ আগস্ট সকালে এলিজা তার শিশুকন্যাকে নিয়ে শেবাচিম হাসপাতালের শিশুবিভাগের ডাক্তার ফয়জুল হক পনিরের কাছে যায়। এসময় সিরিয়াল ভেঙ্গে এলিজা তার সন্তানের ব্যবস্থাপত্র দেয়ার দাবি করে। ডাক্তার পনির এতে অস্বীকার করায় ক্ষিপ্ত হয় এলিজা। এসময় তাদের মধ্যে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে এলিজার স্বামী শাহ আলম ভূইয়া ঘটনাস্থলে এসে ডাক্তার পনিরকে মারধর করে। এঘটনায় ডাক্তার পনির বাদী হয়ে এলিজা ও তার স্বামীকে অভিযুক্ত করে কোতয়ালী মডেল থানায় মামলা করে। এর প্রেক্ষিতে এলিজা আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে বিচারক ঐ আদেশ দেন।