চাঁপা হত্যার সাজা মওকুফ প্রত্যাহারের দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ ফৌজিয়া রহমান ওরফে চাঁপা হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি নগরীর ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান রেফকোর মালিকের ছেলে জহিরুল আলম কামালের সাজা মাফ করার বিষয়ে আইন মন্ত্রণালয়ের সম্মতি প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ। গতকাল সোমবার রাজধানীতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত এক মানববন্ধনে এ দাবি জানানো হয়। মহিলা পরিষদের নেতারা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা, গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। এছাড়াও মহিলা পরিষদের জেলা শাখা এই ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।
মানববন্ধনে মহিলা পরিষদের নেতারা জানান, জহিরুল আলম কামালের মতো আসামির সাজা মাফ করা হলে নির্যাতনের শিকার পরিবার নিরাপত্তাহীনতার সম্মুখীন হবে। নারী নির্যাতনকারীরা প্রশ্রয় পাবে। মহিলা পরিষদ এ ঘটনায় অভিযুক্ত আসামির সাজা মওকুফের আবেদন অনুমোদন করা থেকে বিরত থাকার জন্য রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও আইনমন্ত্রীর কাছে দাবি জানান। একই সঙ্গে ঘটনার শিকার পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানানো হয়।
মানবন্ধনে মহিলা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মালেকা বানু বলেন, এ মানববন্ধন থেকে দেশব্যাপী নারী নির্যাতনের প্রতিবাদে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তোলা হবে।
নিহত চাঁপার বোন খায়রিয়া রহমান বলেন, ‘আমার বোনকে খুন করার পর থেকে আমার বাবা অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। তিনি এখন আইসিইউতে আছেন। আমার বাবার দাবি, খুনির যেন সাজা হয়।’
এর আগে যখন জহিরুলকে আদালত থেকে খালাস দেওয়া হয়েছিল, ওই সময় মহিলা পরিষদ যেভাবে আন্দোলন গড়ে তুলেছিল, খুনির সাজা নিশ্চিত করতে এবারও একইভাবে আন্দোলন গড়ে তোলা হবে বলে মানববন্ধনে জানানো হয়।
এ সময় আরও বক্তব্য দেন মহিলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফাওজিয়া মোসলেম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রাখী দাশ পুরকায়স্থ, সহসাধারণ সম্পাদক মাসুদা রেহানা বেগম ও মহিলা পরিষদের ঢাকা মহানগরের লিগ্যাল এইড সম্পাদক শামিমা আফরোজ আইরিন। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মাকসুদা আক্তার। এ সময় মহিলা পরিষদের অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।