ক্ষমতাসীন দল সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী পরিষদ নেতাদের বিরুদ্ধে বিষেদাগার

ওয়াহিদ রাসেল ॥ বিভিন্ন প্রতিশ্রুতি ও প্যানেলকে জয়যুক্ত করার আহ্বান জানিয়ে পরিচিতি সভা করেছে ক্ষমতাসীন মহাজোট সমর্থিত বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদ। আগামী ১১ ফেব্রুয়ারী জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনকে সামনে রেখে গতকাল রোববার দুপুর দেড়টায় সমিতির মূল ভবনে সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে নাসির আহাম্মেদ খান বাবুলের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন সহ-সভাপতি শামসুল আলম সেলিম, বরিশাল ল’ কলেজের সাবেক ভিপি রফিকুল ইসলাম খোকন, যুগ্ম সম্পাদক নিয়াজ মামুন খান, সিনিয়র আইনজীবী দিলিপ কুমার চ্যাটার্জি, সৈয়দ ওবায়দুল্লাহ সাজু, তোফাজ্জেল হোসেন খোকা। এ সময় বক্তারা বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদ মনোনীত প্রার্থীদের ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করার আহ্বান জানান। পরবর্তীতে প্যানেলের প্রার্থীদেরকে সদস্যদের সাথে পরিচয় করিয়ে দেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির প্রেসিডিয়াম সদস্য আব্দুর রশিদ খান। পরিচিতি সভায় সাইফুল আলম গিয়াসকে সভাপতি, মুক্তিযোদ্ধা এমদাদুল হক খানকে সহ-সভাপতি, দেলোয়ার হোসেন দিলুকে সাধারণ সম্পাদক ও মাসুম খানকে যুগ্ম সম্পাদক হিসেবে প্রকাশ করা হয়। এছাড়াও মাহবুব আলম লিটন, তারিকুল হাসান পলাশ, দুলাল চন্দ্র শীল, লিটন চন্দ্র শীলকে নির্বাহী সদস্য ও মিজানুর রহমান খান, হুমায়ন কবির খান-২, এএইচএম সালাম মুন্সি, রফিকুল ইসলাম-১ কে সদস্য নির্বাচন উপ-পরিষদ প্রার্থী হিসেবে পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়। পরিচিতি শেষে সম্পাদক প্রার্থী দেলোয়ার হোসেন দিলু বলেন, পূর্বের কমিটিগুলো তাদের ক্ষমতার অপব্যবহার করেছে। কেবিএস আহাম্মেদ কবির সম্পাদক থাকাবস্থায় হিসাব রক্ষক আলমগীরের মাধ্যমে ১৭ লাখ টাকা আত্মসাৎ করেছে। যার হিসেব তারা এখনো পরিশোধ করেনি। এছাড়াও মানবেন্দ্র বটব্যাল ও সাংসদ তালুকদার মোঃ ইউনুসের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, তারা সিন্ডিকেটের মাধ্যমে মনোনয়ন বাণিজ্য করেছে। আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ, বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদ ও গণতান্ত্রিক আইনজীবী পরিষদের সমন্বয়ে সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ গঠন করা হয়। কিন্তু এবার বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদ আলাদা হওয়ার পরও তারা অন্যায়ভাবে শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের ব্যানারে নির্বাচন করছে। এছাড়াও এবারের নির্বাচনে ক্ষমতাসীন মহাজোট সমর্থিত দুটি প্যানেল হওয়ায় তারা প্রায়ই বিতর্কে জড়িয়ে পড়ছে। উন্মুক্ত আলোচনায় বিরুপ মন্তব্যও করা হয়। পরিশেষে তারা নির্বাচনে একসাথে কাজ করার জন্য অপর প্যানেলকে আহ্বান জানান। তাদের প্যানেল বিজয়ী হলে মহান মুক্তিযুদ্ধের আদর্শ বাস্তবায়ন, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, মনোনয়ন বাণিজ্য বন্ধ, ক্ষমতার অপব্যবহার ও সিন্ডিকেটের লুটপাটের হাত থেকে আইনজীবী সমিতিকে রক্ষায় তারা কাজ করবে। পরিচিতি সভায় সঞ্চলনা করেন সংগঠনের নেতা রফিকুল ইসলাম ঝন্টু।