কমিউনিটি পুলিশের কদর বৃদ্ধি

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ বরিশালে কদর বাড়ছে কমিউনিটি পুলিশের। হরতাল-অবরোধে মহাসড়কে জান মালের নিরাপত্তায় দায়িত্ব পালনের পর এবার যানজট নিরসনে মাঠে নামছেন তারা। তবে নামের সাথে একটু ভিন্নতা নিয়েই ট্রাফিক পুলিশের পাশাপাশি যানজট নিরাসনে দায়িত্ব পালন করবেন কমিউনিটি পুলিশ সদস্যরা। ইতোমধ্যে গতকাল বৃহস্পতিবার কমিউনিটি ট্রাফিক পুলিশ নামে উপাধি পাওয়া কমিউনিটি পুলিশদের নির্বিঘেœ দায়িত্ব পালনের লক্ষে প্রদান করা হয়েছে জ্যাকেট। বিএমপি কমিশনার শৈবাল কান্তি চৌধুরী এই জ্যাকট প্রদান করেন।
বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের ট্রাফিক বিভাগ সূত্রে জানাগেছে, নগরীতে ক্রমশই বৈধ এবং অবৈধ যানবাহনের সংখ্যা বেড়ে গেছে। এর ফলে শহরের সদর রোড, হাসপাতাল রোড, লঞ্চ ঘাট, বাস টার্মিনাল সহ গুরুত্বপূর্ন সড়ক গুলোতে প্রতিনিয়ত যানজট বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিন্তু সেই তুলোনায় বাড়েনি বরিশাল মেট্রো পলিটন এলাকায় ট্রাফিক পুলিশের সংখ্যা। যে সংখ্যক ট্রাফিক পুলিশ রয়েছে তাদের নগরীর গুরুত্বপূর্ন সড়ক গুলোতে যানজট নিরসন এবং শৃংখলা বজায়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত একটানা দায়িত্ব পালন করতে হচ্ছে। তার মধ্যে আবার কোথাও চেক পোষ্ট বা অবৈধ যানবাহন বিরোধী অভিযান চালাতে গেলে অতিরিক্ত ট্রাফিক পুলিশের প্রয়োজন হচ্ছে। কিন্তু সেখানে ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরা সংখ্যায় কম থাকায় রিজার্ভ পুলিশ অথবা আর্মড পুলিশ সদস্যদের নিয়ে অভিযান চালাতে হচ্ছে।
আর তাই এই সমস্যা থেকে নিস্তার পেতেই এবার রাজ পথে নামানো হচ্ছে কমিউনিটি পুলিশ সদস্যদের। শুধুমাত্র গ্রাম পর্যায়েই নয়, তারা এখন নগরীর যানজট এবং সড়কের শৃঙখলা রক্ষায় ভূমিকা রাখবে। এজন্য অবশ্য তাদের দেয়া হয়েছে কমিউনিটি ট্রাফিক পুলিশ উপাধি। গায়ে পুলিশের পোশাক না থাকলেও নগর পুলিশের পক্ষ থেকে তাদের দেয়া হয়েছে কমিউনিটি ট্রাফিক পুলিশের বিশেষ জ্যাকেট। এ জ্যাকেট পড়েই তারা নগরীর যানজট এবং সড়কের শৃংখলা রক্ষায় ট্রাফিক পুলিশের সাথে দায়িত্ব পালন করবেন। সেই সাথে চেক পোষ্ট কিংবা অবৈধ যানবাহন বিরোধী অভিযানেও এদের সহযোগিতা হস্তক্ষেপ করা হবে বলে মেট্রো ট্রাফিক বিভাগ সূত্র নিশ্চিত করেছেন।
এদিকে এ গুরুদায়িত্ব নির্বিঘেœ পালনের লক্ষে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে কমিউনিটি ট্রাফিক পুলিশকে জ্যাকেট প্রদান করেছেন মেট্রো পলিটন পুলিশ কমিশনার শৈবাল কান্তি চৌধুরী। নগরীর বান্দ রোড শেবাচিম হাসপাতাল সংলগ্ন মেট্রো পলিটন পুলিশ কমিশনার কার্যালয়ের সামনে কমিউনিটি ট্রাফিক পুলিশ জ্যাকেট প্রদান কালে উপস্থিত ছিলেন- উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) আবু রায়হান মোহাম্মদ সালেহ, সহকারী কমিশনার (ট্রাফিক) আসাদুজ্জামান, ট্রাফিক পরিদর্শক (টিআই) শামসুল আলম প্রমুখ।