কলাপাড়ার ধানখালী ইউনিয়ন আ'লীগের সম্মেলন স্থগিতের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন | | ajkerparibartan.com কলাপাড়ার ধানখালী ইউনিয়ন আ’লীগের সম্মেলন স্থগিতের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন – ajkerparibartan.com
কলাপাড়ার ধানখালী ইউনিয়ন আ’লীগের সম্মেলন স্থগিতের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন

3:25 pm , November 19, 2019

কলাপাড়া প্রতিবেদক ॥ হাইব্রিড অনুপ্রবেশকারী ঠেকাতে এবার ধানখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ সংবাদ সম্মেলন করেছেন। হাইব্রিড অনুপবেশকারী হিসেবে শাহজাদা পারভেজ টিনু মৃধা বাহিনীর লাগামহীন দৌরাত্ম ধানখালী ইউনিয়নের আসন্ন ত্রিবার্ষিক সম্মেলনকে অনিশ্চত করে দিয়েছে। এসবের প্রতিকার চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন আওয়ামী লীগের ত্যাগী ও পোড়খাওয়া নেতাকর্মীরা। মঙ্গলবার বেলা ১১টায় সোমবাড়িয়া বাজারে ইউপি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সাংগঠনিক সম্পাদক নিজাম উদ্দিন বিশ^াস। অন্যান্যের মধ্যে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম শহিদুল আলম, সহ-সভাপতি আব্দুল ওহাব, সাবেক সভাপতি মোঃ আনোয়ার হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান রিয়াজউদ্দিন তালুকদার প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। বক্তারা জানান, আওয়ামী লীগের গঠনতন্ত্র না মেনে বছরখানেক আগে হঠাৎ করে যুবদলের এই নেতা টিনু মৃধা স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা বনে গেছেন। এখন আওয়ামী লীগের প্রাথমিক সদস্য না থাকলেও গোটা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের ওপর প্রভাব বিস্তার করে দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের দাবড়ে বেড়াচ্ছে। টিনু মৃধার বিরুদ্ধে নোমরহাট বাজারের ইজারাদার হওয়ায় প্রত্যেকটি গবাদিপশুর ক্রেতাদের কাছ থেকে খাজনা এবং বিক্রেতাদের কাছ থেকে চাঁদা আদায়ের অভিযোগ করা হয়। একইভাবে নোমরহাট সেতু পারকালে সকল যানবাহন থেকে চাঁদা তোলার অভিযোগ তুলেন। এক কথায় হাইব্রিড টিনু মৃধা বাহিনীর কারণে নিরাপত্তাহীন হয়ে পড়েছেন ত্যাগী নেতাকর্মীরা। তারা কলাপাড়া উপজেলা, পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের কাছে নিরাপত্তা চেয়ে আসন্ন ২৪ নবেম্বরের সম্মেলন স্থগিতের আবেদন করেছেন। বক্তারা টিনু মৃধার বিত্তবৈভবসহ আয়ের উৎস নিয়েও নানান অভিযোগ তোলেন। এব্যাপারে শাহজাদা পারভেজ টিনু মৃধা এসব ঘটনা তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র বলে দাবি করেন। সন্ত্রাস-চাঁদাবাজির বিষয়টি অস্বীকার করেন। তার পরিবারসহ সবাই আওয়ামী লীগ করেন বলেও দাবি করেছেন। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম রাকিবুল আহসান জানান, ধানখালীর বিষয়টি তারা অবগত রয়েছেন। তিনি চেষ্টা করছেন ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করার। সম্মেলনকে ঘিরে যা হচ্ছে তার জন্য একটি কমিটি গঠণ করে দেয়ার কথা জানালেন তিনি। তবে সম্মেলনকে ঘিরে ইতোমধ্যে এক যুগ সভাপতির দায়িত্ব পালন করা এসএম শহিদুল আলম অব্যহতি দিয়েছিলেন। উপজেলা নেতৃবৃন্দ তকে অব্যহতিপত্র প্রত্যাহারের জন্য অনুরোধ করে অব্যহতিপত্র গ্রহণ করেননি।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT