সাত দফা দাবিতে নগরীতে ওলামা-মাশায়েখের বিক্ষোভ | | ajkerparibartan.com সাত দফা দাবিতে নগরীতে ওলামা-মাশায়েখের বিক্ষোভ – ajkerparibartan.com
সাত দফা দাবিতে নগরীতে ওলামা-মাশায়েখের বিক্ষোভ

2:45 pm , October 21, 2019

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বোরহানউদ্দিনে নবী প্রেমিক তাওহীদি জনতার উপর পুলিশের বর্বর নির্যাতন ও গুলি বর্ষণের প্রতিবাদসহ সাত দফা দাবিতে নগরীতে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার বিকেলে নগরীর সদর রোডস্থ অশি^নী কুমার হল চত্ত্বরে সর্বস্তরের নবী প্রেমিক ওলামা-মাশায়েখ ও তাওহীদী জনতার ব্যানারে এই প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। বাজার রোড জামিয়া আরাবিয়া খাজা মঈন উদ্দিন মাদ্রাসার মুহতামিম ও বরিশাল সর্বস্তরের ওলামা-মাশায়েখ এবং তৌহিদী জনতার সভাপতি হাফেজ মাওলানা আব্দুল হালীম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- নগরীর এবায়েদুল্লাহ জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওলানা নূরুর রহমান বেগ, মুফতি শাব্বির আহমাদ, মহানগর ইমাম সমিতির সভাপতি মাওলানা আহমাদ আলী কাসেমী, মাওলানা কাজী আব্দুল মান্নান, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা শামছুল আলম, মাহমুদিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা ওবাইদুর রহমান মাহবুব, বাজার রোড মাদ্রাসার মাওলানা রুহুল আমীন, মাওলানা গোলাম মোস্তফা, মাওলানা রফিকুল ইসলাম, মাওলানা যোবায়েরুল হক, মাওলানা তৌফিকুল ইসলাম, মাওলানা ওমর ফারুক বিন মুফতি নূরুল্লাহ, মাওলানা মুখলেছুর রহমান প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, ‘ভারতের উগ্র হিন্দুত্ববাদী সংগঠন ইসকন এর সদস্য বিপ্লব চন্দ্র শুভ ফেসবুক আইডি থেকে তার ফ্রেন্ড লিষ্টের বেশ কয়েকজনের কাছে আল্লাহ এবং রাসূল (সা:) কে নিয়ে কু-রুচিপূর্ন ভাষায় গালাগালের মেসেজ প্রেরণ করে। যা নিয়ে সোস্যাল মিডিয়ায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়। পাশাপাশি বিপ্লব চন্দ্র শুভ’র এলাকা বোরহানুদ্দিনে নবী প্রমিক তাওহীদি জনতা বিক্ষোভ করে। ওই বিক্ষোভের মাধ্যমে বিপ্লব চন্দ্র শুভকে অতিসত্বর গ্রেফতার ও বিচার দাবি জানালে পুলিশ তাদের ওপর গুলিবর্ষণ করে। এতে চারজন নিহত এবং সহস্রাধিক আহত হয়।
বক্তারা বলেন, ‘ বোরহানউদ্দিনের মজলুম মুসলমানরা আমাদের ভাই, তাদের নির্যাতনের আমরা ঘরে বসে থাকতে পারি না। বাংলাদেশের পনের কোটি মুসলমান। বোহানউদ্দিনের মজলুম মুসলমানদের পক্ষে শরীরের শেষ রক্তবিন্দু দিয়ে হলেও আন্দোলন চালিয়ে যাব। শুধু ভোলার বোরহানউদ্দিনেই নয়, বিশে^র কোন এক প্রান্তেও যদি মুসলমানদের উপর নির্যাতন করা হয়, তাহলে আমরা এর জোর প্রতিবাদ করে যাবোই ইন্শা আল্লাহ। বক্তারা আরো বলেন, ‘আন্দোলন করা স্বাধীন বাংলাদেশের একটি ন্যায্য অধিকার। বাংলাদেশের সর্বস্তরের ওলামায়ে কেরাম ও তৌহিদী জনতা ঐক্যবদ্ধভাবে আন্দোলন করে উগ্র হিন্দুত্ববাদী ইসকন এর মূলৎপাটন করবেই ইন্শা আল্লাহ। এসময় বক্তারা বক্তৃতার মাধ্যমে তাদের ৭ দফা দাবী তুলে ধরেন।
দাবীগুলো হলো- পুলিশ বাহীনির নির্মম নির্যাতনে শহীদ পরিবারকে উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দেয়া, পুলিশ বাহিনির বেপরোয়া নির্যাতনের শিকারে যারা আহত হয়েছে তাদের সরকারি খরচে উন্নত সেবা প্রদান, গ্রেফতারকৃতদের অতিসত্বর নিঃশর্ত মুক্তি দেয়া, হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করা, ইসলাম, আল্লাহ ও নবী রাসূলকে কটুক্তিকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ডসহ বেলাসফেমী আইন বাস্তবায়ন করা, বিপ্লব চন্দ্র শুভ ও তার সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে দ্রুত বিচারের আওতায় এনে ফাঁসি কার্যকর করা এবং ভোলা ও বোরহানউদ্দিনে পুলিশ কর্মখর্তা ও পুলিশ সদস্যদের তদন্ত সাপেক্ষে বিচারের আওতায় এনে শাস্তি বাস্তবায়ন এবং ভোলা ও বোরহানউদ্দিন থেকে প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT