ছদ্মবেশে নগরময় ঘুরলেন মেয়র সাদিক আবদুল্লাহ | | ajkerparibartan.com ছদ্মবেশে নগরময় ঘুরলেন মেয়র সাদিক আবদুল্লাহ – ajkerparibartan.com
ছদ্মবেশে নগরময় ঘুরলেন মেয়র সাদিক আবদুল্লাহ

3:01 pm , October 25, 2018

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ তখন সময় আনুমানিক দুপুর আড়াইটা। পুরানো একটি জিন্স প্যান্ট, গায়ে টি-শার্ট ও মাথায় হেলমেট পড়ে নগর ভবনে প্রবেশের চেষ্টা করেন এক ব্যক্তি। যথা নিয়মেই নগর ভবন কম্পাউন্ডে মোটর সাইকেল নিয়ে তাকে প্রবেশে বাঁধা দেয় নিরাপত্তা প্রহরীরা। কোন মতেই মোটর সাইকেল নিয়ে প্রবেশ করতে পারছিলেন না তিনি। তা দেখে জড়ো হয় বিসিসির কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। হঠাৎ করেই মাথা থেকে হেলমেট খুলে হাতে নিলেন ওই ব্যক্তি। মুহুর্তের মধ্যে হতবাক হয়ে যান সবাই। অবাক দৃষ্টিতে তাকিয়ে থাকার সাথে শুরু হয় সম্মান প্রদর্শন। তার প্রবেশের জন্য খুলে দেয়া হয় নগর ভবনের গেটটি। কেননা ছদ্মবেশে আসা ওই ব্যক্তিটি ছিলেন সিটি’র নবনির্বাচিত মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। শুধু নগর ভবনেই নয়, ওই ছদ্মবেশ নিয়ে মোটর সাইকেলে চেপে পুরো নগরী ঘুরে বেড়িয়েছেন তিনি। নিজ চোখে প্রত্যক্ষ করেছেন নগরবাসীর সমস্যা ও সম্ভাবনার নানান চিত্র। দায়িত্ব গ্রহণের তিন দিনের মাথায় সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ’র ছদ্মবেশে ঘুরে বেড়ানোর এমন চিত্র সকলকেই চমকে দিয়েছে। পাশাপাশি উচ্চ পর্যায় থেকে নি¤œমহল পর্যন্ত সকলের মধ্যেই ইতিবাচক আলোচনার সৃষ্টি করেছে।
খোঁজ নিয়ে জানাগেছে, সিটি মেয়র এর দায়িত্ব গ্রহনের পর থেকেই সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লার পেছনে আঠার মত লেগে আছে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর প্রটোকল, বিশেষ বাহিনীর প্রটোকল এবং নিজ দলীয় নেতা-কর্মীরা। তাদের ফেলে যেন নিদ্রায় যেতেও অস্বস্থি বোধ করছিলেন মেয়র সাদিক আবদুল্লাহ। এর মধ্যেই গতকাল বৃহস্পতিবার হঠাৎ করেই উধাও হয়ে যান তিনি। কালিবাড়ি রোডে সেরনিয়াবাত ভবন থেকে তিনি ছদ্মবেশে বেরিয়ে গেলেও তা দেখতে পায়নি কেউ। মেয়রের অনুপস্থিতি দেখে চিন্তিত হয়ে পড়েন সংশ্লিষ্ট সকলে। তার অবস্থান নিশ্চিত হতে খোঁজ খবর নিতে শুরু করে সবাই।
কিন্তু সেই সুযোগে মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ একটি কালো রং এর মোটর সাইকেল নিয়ে মাথায় সবুজ ও কালো রং এর হেলমেট পড়ে ঘুরে বেড়ান গোটা নগরী। এসময় তার গায়ে একটি সাদা রং এর টি-শার্ট এবং পরনে ছিলো পুরানো রং চটা জিন্স প্যান্ট। ওই বেশে বাসা থেকে বের হয়ে প্রথমে তিনি ৬নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক প্রিন্স মাহমুদ সোহেল এর বাবার দাফনে অংশ নিতে কাজীর গোরস্থানে যান। সেখানে তিনি কিছু সময় অবস্থান করলেও কেউ তাকে চিনতে পারেনি। তবে হেলমেট খোলার পরে তাকে দেখে অবাক হন সবাই।
এদিকে দাফন শেষে করে পুনরায় একই ছদ্মবেশে বেরিয়ে পরেন সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। নিজেই মোটর সাইকেল চালিয়ে নগরীর বিভিন্ন কলোনী এবং বর্ধিত এলাকা ঘুরে আসেন। প্রত্যক্ষ করেন নগরীর গুরুত্বপূর্ন এবং অভ্যন্তরীন সড়কের বেহাল চিত্র। ড্রেনেজ ব্যবস্থা ত্রুটি খুঁজে বের করেন তিনি। এছাড়া নগর জুড়ে সমস্যা ও সম্ভাবনার চিত্র ছদ্মবেশে প্রত্যক্ষ করেছেন মেয়র। এমনসব চিত্র প্রত্যক্ষকালে তিনি আসা যাওয়া করেছেন নিজ দল আওয়ামী লীগ এবং ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের সামনে থেকে। যে যার মত ব্যস্ত থাকলেও কেউ চিনে উঠতে পারেনি সাদিক আবদুল্লাহকে। নগরের সমস্যা ও সম্ভাবনা নিজ চোখে প্রত্যক্ষ করে দুপুর আড়াইটায় নগর ভবনে পৌঁছে ছদ্মবেশের অবসান ঘটিয়ে নিজ বেশে ফেরেন সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT