রায়কে অভিনন্দন জানিয়ে আওয়ামী লীগের মিছিল ও অবস্থান | | ajkerparibartan.com রায়কে অভিনন্দন জানিয়ে আওয়ামী লীগের মিছিল ও অবস্থান – ajkerparibartan.com
রায়কে অভিনন্দন জানিয়ে আওয়ামী লীগের মিছিল ও অবস্থান

5:46 pm , October 10, 2018

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ গ্রেনেড হামলার রায়কে অভিনন্দন জানিয়ে আনন্দ মিছিল ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগ। গতকাল বুধবার রায় ঘোষনার পর পরই পৃথকভাবে তারা মিছিল বের করেন। পাশাপাশি রায়কে অভিনন্দন ও দ্রুত কার্যকরের দাবী জানিয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ নেতারা।

এর আগে গ্রেনেড হামলা মামলার রায়কে কেন্দ্র করে দুপুরের আগেই সদর রোডস্থ শহীদ সোহেল চত্ত্বরে আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেয় আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা। দুপুরে রায় ঘোষনার পর পরই আনন্দ উল্লাসে ফেটে পড়েন তারা। রায়কে শুভেচ্ছা এবং অভিনন্দন জানিয়ে তাৎক্ষনিক এক আনন্দ মিছিল করা হয়। সোহেল চত্ত্বরে দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে বের হওয়া মিছিলটি সদর রোড সহ শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস-এমপি, বরিশাল সদর আসনের এমপি জেবুন্নেছা আফরোজ, বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল, সিনিয়র সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট আফজালুল করিম, সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট একেএম জাহাঙ্গীর, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সৈয়দ আনিছুর রহমান, মোহাম্মদ হোসেন চৌধুরী, শ্রমিক লীগ মহানগর কমিটির সাধারণ সম্পাদক পরিমল চন্দ্র দাস, যুবলীগ নেতা তারিক বিন ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক প্রমুখ।

মিছিল শেষে আওয়ামী লীগ এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা পুনরায় আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেয়। এসময় রায়ের বিষয়ে এক প্রতিক্রিয়ায় বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস-এমপি বলেন, ২০০৪ সালের ২১ আগষ্ট বিএনপি-জামায়াত জোট গ্রেনেড হামলা চালিয়ে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার পরিকল্পনা করেছিলো। কিন্ত সেই পরিকল্পনায় শেখ হাসিনা বেঁচে গেলেও আইভি রহমানসহ ২৪ জন নেতা-কর্মী নিহত হয়েছেন এবং ৩শ’ নেতা-কর্মী আজীবনের জন্য পঙ্গুত্ববরণ করেছেন। সে সময় বিএনপি-জামায়াত জোট ক্ষমতায় থেকে গ্রেনেড হামলার ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত বা বিচার করেনি।

পরবর্তীতে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় এসে ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে অভিযুক্তদের বিচারের আওতায় এনেছেন। এই রায়ে আওয়ামী লীগসহ গোটা জাতি সন্তুষ্ট ও আনন্দিত। রায়ে প্রমান হলো দেশে আর কোনোদিন হত্যা ষড়যন্ত্রের রাজনীতি হবে না। আমরা অবিলম্বে এই রায় কার্যকরের দাবী জানাই। পাশাপাশি তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেয়া যাবজ্জীবন সাজার আদেশ বাতিল করে ফাঁসির রায়ের দাবী জানান তিনি।

বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল বলেন, এই রায়ের মধ্যে দিয়ে দেশে যে আইনের শাসন রয়েছে তা আবারো সুস্পষ্ট হলো। দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলার ঘটনা ছিলো রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস। যা তৎকালীন ক্ষমতাসীনদের প্ররোচনায় হয়েছে। এই রায়ের মধ্য দিয়ে রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদ, মৌলবাদ দমন হয়েছে।

মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি এ্যাভোকেট আফজালুল করিম বলেন, এই রায়ে আমরা শতভাগ সন্তুষ্ট নই। এই ঘটনার মুল পরিকল্পনাকারী তারেক জিয়াকে ছাড় দেয়া হয়েছে। তৎকালিন হাওয়া ভবনে বসে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মুল পকিল্পনকারী ছিলো তারেক রহমান। এর পরেও তাকে ছাড় দিয়ে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দেয়া হয়েছে। তাই তারেক জিয়ার রায় পুনঃবিবেচনায় এনে মৃত্যুদন্ড দেয়ার পাশাপাশি আদালতের রায় অবিলম্বে কার্যকর করার দাবী জানান তিনি।

বরিশাল জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক বলেন, সারা বাংলাদেশের ছাত্রসমাজ আজ আনন্দিত। এই কাঙ্খিত দিনটির আশায় ছিলাম আমরা। রায়ে প্রমানিত হয়েছে বিএনপি-জামায়াত জোটই এই ন্যাক্কার জনক ঘটনা ঘটিয়েছে।

এদিকে গ্রেনেড হামলা মামলার রায়কে শুভেচ্ছা এবং অভিনন্দন জানিয়ে সন্ধ্যায় আনন্দ মিছিল করেছে বরিশাল জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগ। দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে বের হওয়া মিছিলটি সদর রোড সহ শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। পরে পুনরায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়। ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিলে আওয়ামী লীগ বরিশাল জেলা ও মহানগরের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT