যার ভয়ে সবাই কাঁপতো এখন তার কেউ নেই | | ajkerparibartan.com যার ভয়ে সবাই কাঁপতো এখন তার কেউ নেই – ajkerparibartan.com
যার ভয়ে সবাই কাঁপতো এখন তার কেউ নেই

3:10 pm , August 3, 2019

পরিবর্তন ডেস্ক ॥ কুখ্যাত সন্ত্রাসী এরশাদ শিকদারের বডিগার্ড ও ১২ মামলার রাজসাক্ষী নুর আলম ২০ বছর পর মুক্তি পাচ্ছেন। সাজার মেয়াদ শেষ হওয়ায় ও অন্য কোনো মামলা না থাকায় তাকে মুক্তির আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার (২৯ জুলাই) ঢাকার ৯ নম্বর বিশেষ জজ আদালতের বিচারক শেখ হাফিজুর রহমান অন্য কোনো মামলা না থাকলে নুর আলমকে কারাগার থেকে মুক্তির আদেশ দেন। ১৯৯৯ সালের ১ সেপ্টেম্বর গ্রেফতার হন নুর আলম। সেই থেকে গত ২০ বছর কারাগারে তিনি। নুর আলম চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ থানার আজিমপুর গ্রামের বাসিন্দা। ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলায় জন্মস্থান কুখ্যাত সন্ত্রাসী এরশাদ শিকদারের। খুলনায় বসবাসকালে সন্ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেন তিনি। সন্ত্রাসী থেকে বনে যান গডফাদার। খুন-ধর্ষণসহ নানা অপরাধে জড়িয়ে হয়ে যান অপরাধ জগতের খলনায়ক এরশাদ শিকদার। তখন তার সঙ্গে যোগ দেন নুর আলম। একসময় এরশাদ শিকদারের বডিগার্ড হয়ে যান তিনি। বডিগার্ড নুর আলম এরশাদ শিকদারের ১২ খুনের সহযোগী। জানা যায়, এরশাদ শিকদার গ্রেফতার হওয়ার পর নুর আলম রাজসাক্ষী হন। তার সাক্ষ্যের ওপর ভিত্তি করে খুলনার জলিল টাওয়ার মালিকের ম্যানেজার খালিদ হত্যা মামলায় এরশাদ শিকদারের ফাঁসির আদেশ হয়। ২০০৪ সালের ১০ এপ্রিল মধ্যরাতে খুলনা জেলা কারাগারে এরশাদ শিকদারের ফাঁসি কার্যকর হয়। এভাবে একে একে ১১টি মামলায় রাজসাক্ষী হিসেবে কারাগার থেকেই এরশাদ শিকদারের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দেন নুর আলম। বাকি ছিল রাজধানীর লালবাগ থানার আজিজ অপহরণপূর্বক হত্যা মামলার সাক্ষ্য দেয়া।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT