বানারীপাড়ায় ১০৩ টাকায় পুলিশে চাকুরি পেয়েছে কৃষক কন্যা | | ajkerparibartan.com বানারীপাড়ায় ১০৩ টাকায় পুলিশে চাকুরি পেয়েছে কৃষক কন্যা – ajkerparibartan.com
বানারীপাড়ায় ১০৩ টাকায় পুলিশে চাকুরি পেয়েছে কৃষক কন্যা

3:22 pm , July 9, 2019

বানারীপাড়া প্রতিবেদক ॥ বানারীপাড়ায় মাত্র ১০৩ টাকায় পুলিশ কনষ্টেবল পদে চাকরি হলো হতদরিদ্র কৃষক কন্যা পপি খানমের। এ যেন গরীবের জীর্ণ কুটিরে এক চিলতে চাঁদের আলো পড়ার মতো। উপজেলার সদর ইউনিয়নের দক্ষিণ জম্বদ্বীপ গ্রামের হতদরিদ্র কৃষক শেখ ইয়ার হোসেন একটি পুত্র সন্তানের আশায় একে একে ৭ কন্যা সন্তানের জনক হন। শেখ ইয়ার হোসেনের পৌর শহরের ২ নং ওয়ার্ডের দক্ষিণ নাজিরপুর গ্রামের বসতভিটা সন্ধ্যা নদী গর্ভে বিলীন হয়ে যাওয়ার পরে গত প্রায় দুই দশক ধরে বানারীপাড়া সদর ইউনিয়নের জম্বদ্বীপ গ্রামে অন্যের জমিতে বসবাস ও কৃষিকাজ করে ৭ কন্যা সন্তানের লেখাপড়া সহ ৯ সদস্যের পরিবারের ভরণপোষণ করতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছিলেন। তার অভাগী সংসারে নুন আনতে পান্তা ফুরায় অবস্থা। তাদের প্রতিদিন তিন বেলা ঠিকমতো খাবারও জুটেনা। নেই ভালো কোনও পোশাকও। ঘরের অবস্থাও জীর্ণকার। বেশীরভাগ সময় ভিজিডি ও ভিজিএফ কার্ডের চালে চলে তার সংসার। দারিদ্রতার কারণে মানবেতরভাবে জীবনযাপন করলেও এ পরিবারের মেধাবী ৭ কন্যাই কলেজ,মাধ্যমিক ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করছেন। তাদের লেখাপড়া ও ভরণপোষণের জন্য ইয়ার হোসেনকে আত্মীয়-স্বজন কিংবা শুভাকাঙ্খীদের কাছে প্রায়ই হাত পাততে হয়। ইয়ার হোসেনের টানাটানির অভাবী এ সংসারে একটি চাকরির খুবই প্রয়োজন ছিলো। তবে ঘুষ বানিজ্যের এ যুগে তাদের কাছে চাকরি প্রত্যাশা ছিলো “অলীক স্বপ্ন” কিংবা “সোনার হরিণের” মতো। মানবদরদী প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় এবছর পুলিশ কনষ্টেবল পদে বিনা টাকায় চাকরি হবে জানতে পেরে ইয়ার হোসেন তার মেজ মেয়ে বানারীপাড়া ডিগ্রী কলেজে একাদশ শ্রেণীতে অধ্যয়নরত পপি খানমকে দিয়ে একশত টাকার ট্রেজারী চালান ও তিন টাকার ফরমে মোট ১০৩ টাকা খরচ করে আবেদন করান।বানারীপাড়া প্রেসক্লাব সভাপতি রাহাদ সুমনের মাধ্যমে যোগাযোগ করেন বানারীপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মো. খলিলুর রহমানের সঙ্গে।তিনি তাদের আশ্বস্ত করেন এবছর অর্থে নয় যোগ্যতার ভিত্তিতে নিয়োগ প্রদান করা হবে। নিত্য দারিদ্রতার সঙ্গে যুদ্ধ করা এ পরিবারটির প্রতি সদয় হন ¯্রষ্টাও। পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরি পেয়ে যান পপি। ইয়ার হোসেন স্বপ্নেও কোনদিন ভাবেননি তার মেয়ের বিনা টাকায় পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরি হয়ে যাবে। তাও আবার বানারীপাড়া উপজেলায় একমাত্র নারী কনস্টেবল হিসেবে পপির চাকরি হয়েছে। পপির চাকরি হওয়ায় তার দরিদ্র পরিবারে বইছে আনন্দের বন্যা। হাসি ফুঁটেছে সবার মুখে। উচ্ছ্বসিত শেখ ইয়ার হোসেন বিনা টাকায় তার মেয়ের চাকরি হওয়ায় বঙ্গবন্ধু কন্যা মাদার অব হিউম্যানিটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা,স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল,আইজিপি ড. জাবেদ পাটওয়ারী,বরিশাল রেঞ্জের ডিআইজি শফিকুল ইসলাম বিপিএম(বার) পিপিএম,জেলা পুলিশ সুপার সাইফুল ইসলাম বিপিএম (বার) ও বানারীপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মো. খলিলুর রহমান সহ নিয়োগের সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের প্রতি চির কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ




মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT