নগরীতে পেট কেটে হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার ॥ আটক | | ajkerparibartan.com নগরীতে পেট কেটে হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার ॥ আটক – ajkerparibartan.com
নগরীতে পেট কেটে হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার ॥ আটক

6:16 pm , May 30, 2018

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ নগরীতে ডিবি পুলিশের হাতে আটক হওয়া এক মাদক পাচারকারীর পায়ু পথ থেকে বের করা হয়েছে এক হাজার পিস ইয়াবা। মাত্র ১০ হাজার টাকার বিনিময়ে পায়ু পথ থেকে পেটের ভেতর ঢুকিয়ে ওই ইয়াবা নগরীতে পৌছে দিতে আসে পঞ্চাশ বছর বয়সী নূরে আলম। গতকাল বুধবার শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অস্ত্রপচারের মাধ্যমে নূরে আলমের পেট কেটে প্যাকেটে মোড়ানো অবস্থায় থাকা ইয়াবা বের করেন চিকিৎসকরা। নূরে আলম লক্ষ্মীপুরের আলেকজান্ডার থানাধীন চরসীতা এলাকার মৃত আবু হাসেমের ছেলে। গত মঙ্গলবার দিবাগত গভীর রাতে নগরীর রূপাতলী এলাকার একটি ভাড়া বাসা থেকে নূরে আলম সহ তিনজনকে আটক করে ডিবি পুলিশ।

আটককৃত অপর দুই মাদক ব্যবসায়ীরা হলো- নগরীর গোরস্থান রোড এলাকার বাসিন্দা মশিউর রহমান বাবু ও অপরজন নিউ সাকুলার রোড এলাকার বাসিন্দা মুন্না বিশ্বাস। এই ঘটনায় ডিবি’র এসআই আশীষ পাল বাদী হয়ে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ডিবি পুলিশের সহকারী পুলিশ কমিশনার নাসির উদ্দিন মল্লিক জানান, মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১টার দিকে তার নেতৃত্বে নগরীর রূপাতলী এলাকায় জনৈক সুলতান এর বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করে ডিবি’র এসআই আশীষ পাল ও তার সঙ্গিয় ফোর্স। এসময় সুলতানের বাড়ির ভাড়া দেয়া একটি কক্ষ থেকে নূরে আলম সহ তিনজনকে আটক করে ডিবি’র অভিযানিক দল। এর কিছুক্ষনের মধ্যেই অসুস্থ হয়ে পড়ে মাদক পাচারকারী নূরে আলম। তখন ডিবি পুলিশেল জিজ্ঞাসাবাদে নূরে আলম তার পেটে ইয়াবা বহনের কথা স্বীকার করে।

নূরে আলম এর দেয়া তথ্যের বরাত দিয়ে সহকারী পুলিশ কমিশনার নাসির উদ্দিন মল্লিক বলেন, একটি প্যাকেটের মধ্যে মোড়া এক হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট নূরে আলম তার পেটের মধ্যে করে বহন করে চট্টগ্রাম থেকে নগরীতে নিয়ে এসেছে। ইনজেকশন দিয়ে অবশ করে ওই ইয়াবার প্যাকেট পায়ু পথ থেকে পেটের মধ্যে ঢোকানো হয়। ১০ হাজার টাকা চুক্তিতে ওই পদ্ধতিতে নূরে আলম ইয়াবা নিয়ে নগরীরে এসেছে বলে স্বীকার করেছে।

এদিকে নূরে আলম অসুস্থ হয়ে পড়লে প্রথমে তাকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার পেটের এক্সরে করে ইয়াবা থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হন চিকিৎসকরা। এর পর দুপুরে হাসপাতালের অস্ত্রপচার হয়। শেবাচিমের সার্জারী বিভাগের ডা. ইখতিয়ার হাসান জানান, নূরে আলম’র পেটের ভেতর থেকে ইয়াবা বের করতে অস্ত্রপচারের প্রয়োজন হয়েছে। পেট কেটে ভেতর থেকে চাপ দিয়ে পায়ু পথ থেকেই ইয়াবার ওই প্যাকেটটি বের করা হয়ে। তাছাড়া অস্ত্রপচার শেষে নূরে আলমকে পোষ্ট অপারেটিভে পর্যবেক্ষনে রাখা হয়েছে। সে আশংকা মুক্ত বলেও জানিয়েছেন ডা. ইখতিয়ার হোসেন।

 

এই বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১  
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী মিরাজ মাহমুদ
 
বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়ঃ কুশলা হাউজ, ১৩৮ বীরশ্রেষ্ঠ ক্যাপ্টেন মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর সড়ক,
সদর রোড (শহীদ মিনারের বিপরীতে), বরিশাল-৮২০০।
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by NEXTZEN-IT